আইসিসি নিয়মে ‘বেনিফিট অব ডাউট’ সবসময়ই যায় ব্যাটসম্যানের পক্ষে

প্রকাশিত: ৯:০৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৮ | আপডেট: ৯:০৬:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৮

এশিয়া কাপে জ্বলে উঠলো লিটন দাসের ব্যাট। তার চমৎকার ইনিংসেই বাংলাদেশ পায় দুর্দান্ত শুরু। সেঞ্চুরি পূরণ করে অবশেষে থামলেন তিনি। দুর্ভাগ্যজনক স্টাম্পিংয়ের শিকার হয়ে ফিরতে হয়েছে তাকে ১২১ রানে।

‘বেনিফিট অব ডাউট’ সবসময়ই যায় ব্যাটসম্যানের পক্ষে। সম্ভবত এদিন তা ভুলে গিয়েছিলেন তৃতীয় আম্পায়ার। লিটন দাসের স্টাম্পিং বেশ লম্বা সময় দেখে সিদ্ধান্ত দিলেন বোলারের পক্ষে। কুলদিপ যাদবের বলে এগিয়ে গিয়ে খেলতে চেয়েছিলেন লিটন। মিস করলে বল ধরে স্টাম্প ভাঙেন ধোনি। ততক্ষণে উইকেটে পা ঢুকিয়ে ফেলেন লিটন। খুব কাছাকাছি থাকায় সিদ্ধান্ত যাওয়ার কথা ব্যাটসম্যানের পক্ষে। কিন্তু দিলেন বোলারের পক্ষে। ফলে লিটনের সংগ্রাম শেষ হয় ১২১ রানে।

এর আগেও এরকম সিদ্ধান্ত বাংলাদেশের বিপক্ষেই গিয়েছে সব সময়। আইসিসির রুলসে পরিষ্কার লিখা আছে যদি ৫০-৫০ ও হয় তাহলেও সিদ্ধান্ত ব্যাটসম্যানের পক্ষে যাবে। কিন্তু বাংলাদেশের ক্ষেত্রেই সেটা হয় ভিন্ন। আর প্রতিপক্ষ ভারত থাকলে তো কথাই নেই।