ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগ

প্রকাশিত: ৯:৪৯ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২২, ২০২১ | আপডেট: ৯:৪৯:অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২২, ২০২১

হাতীবান্ধা (লালমনিরহাট) প্রতিনিধি: লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায় এক যুবকের টাকা ছিনতাই করার অভিযোগ পাওয়া গেছে ইউপি সদস্য মতিয়ার রহমান গংয়ের বিরুদ্ধে।

এ ঘটনায় গত ১৯ এপ্রিল রাতে ইউপি সদস্য মতিয়ার রহমানসহ ৩জনের নাম উল্লেখ করে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন ভূক্তভোগী জিয়াউর রহমান।

এর আগে ১৯ এপ্রিল হাতীবান্ধা উপজেলায় অবস্থিত দেশের সর্ব বৃহত্তম সেচ প্রকল্প তিস্তা ব্যারাজ এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটেছে।

অভিযুক্তরা হলেন, হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী ইউনিয়নের দোয়ানী এলাকার দবির উদ্দিনের ছেলে ইউপি সদস্য মতিয়ার রহমান, একই এলাকার মৃত পাহালি পরামানিকের ছেলে রহমত আলী ও মৃত মকছেদ আলীর পুত্র ইদ্রিস আলী।

আর ভূক্তভোগী জিয়াউর রহমান গড্ডিমারী ইউনিয়নের দোয়ানী এলাকার মৃত লিয়াকত হোসেনের ছেলে।

জানা গেছে, তিস্তা নদীর ড্রেসিং কাজ করছেন জিয়াউল রহমান। কাজ শেষে ১৯ এপ্রিল ৯০ হাজার টাকা নিয়ে বাড়ি ফিরছিলো সে। পথিমধ্যে ইউপি সদস্য মতিয়ার রহমান, রহমত আলী ও ইদ্রিস আলী পূর্ব শত্রুতার জেরে জিয়াউর রহমানের পথরোধ করে তাকে মারধর করেন। এসময় তার সাথে থাকা ৯০হাজার টাকা কেড়ে নিয়ে ছটকে পড়েন তারা।

ভূক্তভোগী জিয়াউর রহমান বলেন, ইউপি সদস্য মতিয়ার, রহমত ও ইদ্রিস তিস্তা ব্যারাজ এলাকায় অবৈধ ভাবে কারেন্ট জাল দিয়ে মাছ ধরে। এছাড়া অনেক স্থানীয় জেলেকে সেখানে মাছ ধরতে দেয় না। তারা সিন্ডিকেট করে মাছ ধরে চড়া দামে বিক্রয় করে। আমি এ নিয়ে অনেকবার প্রতিবাদ করেছি। আর তাই তারা সেই শত্রুতার জেরে আমাকে একা পেয়ে মারধর করে ৯০হাজার টাকা ছিনতাই করেছেন। আমি থানায় অভিযোগ করেছি। আমি এর সঠিক বিচার চাই। আমি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষন করছি বিষয়টি সুষ্ঠ তদন্ত করা হোক যদি এতে আমার কোন দোষ থাকে তাহলে আমি শাস্তি মাথা পেতে নিবো।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত ইউপি সদস্য মতিয়ার রহমান বলেন, এ ঘটনাটি সম্পূর্ন মিথ্যা বানোয়াট। আপনারা এসে তদন্ত করেন বলে ফোনটি কেটে দেয়।

এ বিষয়ে হাতীবান্ধা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এরশাদুল আলম বলেন, এ ঘটনায় পাল্টা-পাল্টা অভিযোগ পাওয়া গেছে। তদন্ত চলছে, তদন্ত শেষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।