ইরানি শিক্ষার্থীদের বিদেশে পড়াশোনা নিষিদ্ধ চায় ইসরায়েল!

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১:৪৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৫, ২০১৯ | আপডেট: ১১:৪৪:অপরাহ্ণ, জুলাই ১৫, ২০১৯

ইরানি ছাত্রদের বিদেশে পড়াশোনা নিষিদ্ধের দাবি জানিয়েছেন আওযি রুবন নামের ইসরায়লি এক ক্ষেপণাস্ত্র বিশেষজ্ঞ।

ওই প্রযুক্তিবিদের দাবি, ইরানি ছাত্ররা বাইরের দেশে পড়াশোনা করে আধুনিক সামরিক প্রযুক্তি রপ্ত করে তা ইরানে কাজে লাগাচ্ছে। ফলে ইরানি ছাত্রদের বাইরের দেশে পড়াশোনা বন্ধ করতে হবে। খবর আল আরাবিয়ার।

সামরিক বিষয়ক ইংরেজি একটি পোর্টালকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এ দাবি করেন তিনি।

তিনি বলেন, পশ্চিমা দেশগুলোর যে পারমাণবিক সক্ষমতা রয়েছে, ইরান সেই শক্তিই অর্জন করতে চায়। এজন্য তারা বিভিন্ন নিষিদ্ধ পদক্ষেপও গ্রহণ করতে দ্বিধাবোধ করছে না। ইরান সামরিক শক্তির পাশাপাশি প্রযুক্তিগত সক্ষমতাও বাড়াচ্ছে।

ইসরাইলি এ প্রযুক্তিবিদ ইরানের সামরিক সক্ষমতার বিষয়ে বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে কুর্দিস্তান পার্টির সদর দফতরে তেহরান হামলা চালিয়েছিল। সেসময় তাদের নিক্ষিপ্ত মিসাইলগুলো ওই দফতরের বোর্ডরুম পর্যন্ত পৌঁছাতে সক্ষম হয়। তাছাড়া ইরানের গোয়েন্দা ব্যবস্থাও বেশ উন্নত। এ জন্য এখনই তাদের প্রযুক্তিগত সক্ষমতা কমানোর উদ্যোগ নিতে হবে।

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার সময় সম্পাদিত পরমাণু সমঝোতাকে একটি ‘দুঃখজনক’ চুক্তি বলে আখ্যায়িত করেন ইসরাইলি এ মিসাইল বিশেষজ্ঞ। তার মতে,ওই সমঝোতার মাধ্যমে বিশ্বের সবচেয়ে চরমপন্থী একটি কাজকে আইনি বৈধতা দেয়া হয়েছে।