ইয়াবাসহ জাবি শিক্ষকের গাড়ি চালক আটক

প্রকাশিত: ১:১৩ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৪, ২০১৮ | আপডেট: ১:১৩:অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৪, ২০১৮

ঈদের আগের রাতে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের এক শিক্ষকের গাড়ি চালকসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের ২ কর্মচারীকে আটক করা হয়েছে। গত মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের চৌরাঙ্গী এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। আটককৃতদের ওই রাতেই আশুলিয়া থানায় হস্তান্তর করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক বিজন কুমার দাস ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান , আটককৃত তিনজনের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত বুধবার তাদেরকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়।

জানা যায়, মোবাইলে সন্দেহজনক কথার সূত্র ধরে বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক আব্দুল মান্নান চৌধুরীর গাড়ি চালক মো. জামাল হোসেনকে ২০ পি. ইয়াবা সহ হাতেনাতে আটক করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের এক নিরাপত্তা কর্মকর্তা। পরে জামাল হোসেনের মাধ্যমে ফোন করে আরো দুই ইয়াবা ব্যবসায়ী শহীদ রফিক জব্বার হলের পিয়ন একরাম হোসেন মোল্লা ও বিশ্ববিদ্যালয় রেজিস্ট্রার অফিসের পিয়ন ফারুক আহমেদ মামুনকে আটক করে নিরাপত্তা অফিস।

তাদের তিনজনের কাছে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা ও ইয়াবা বিক্রির ১৫ হাজার টাকা পাওয়া যায় বলে নিরাপত্তা বিভাগের দাবি। এই চক্রটি দীর্ঘদিন ধরে বিশ্ববিদ্যালয়ে ও তার আশেপাশের এলাকায় ইয়াবা ব্যবসার করে আসছেন বলেও দাবি তাদের।

তবে আটককৃত ফারুক আহমেদ মামুনের ভাই আহমেদ সুজন দাবী করেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা কর্মকর্তা সুদীপ্ত শাহিনের সাথে ব্যক্তিগত দ্বন্দ থাকায় তার ভাইকে ইয়াবা মামলায় ফাঁসিয়ে দেয়া হয়েছে।

এদিকে আটকের পর গাড়িচালক জামাল হোসেনকে ছেড়ে দিয়ে বাকি দুইজনকে থানায় হস্তান্তরের তৎপরতা চালান বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা কর্মকর্তা সুদীপ্ত শাহীন। তথ্য সংগ্রহে সাংবাদিকরা গেলে তাদেরকেও জামাল হোসেনের ছবি তুলতে দেননি তিনি। পরবর্তীতে আশুলিয়া থানা পুলিশ এসে তিনজনকে গ্রেপ্তার করে। কেন জামাল হোসেনকে ছেড়ে দিতে চেয়েছিলেন জানতে চাইলে সুদীপ্ত শাহীন ফোন কেটে দেন।