ওসির বিচার দাবিতে রাস্তায় শুয়ে পড়লেন ডাক্তাররা

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৬:২১ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৮ | আপডেট: ৬:২১:পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৮

চিকিৎসক লাঞ্ছিতের ঘটনায় এক পুলিশ কর্মকর্তার বিচারের দাবিতে আন্দোলনে নেমেছেন কলকাতার চিকিৎসক সমাজ। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে এফআইআর না নেয়ার অভিযোগে সোমবার সন্ধ্যায় আলিপুর থানার সামনে রাস্তায় শুয়ে পড়েন তারা। এ কারণে দীর্ঘ সময় যান চলাচল বন্ধ থাকে ওই সড়কে।

জানা গেছে কলকাতার সিএমআরআই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন যাদবপুর থানার ওসি পুলক দত্ত। গত বুধবার সেখানে শ্রীনিবাস নামে এক জুনিয়র চিকিৎসককে চড় মারেন তিনি। এ ঘটনায় ব্যাপক ক্ষোভ ছড়ায় চিকিৎসকদের মধ্যে।

তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দেয় চিকিৎসকদের সংগঠন জয়েন্ট প্ল্যাটফর্ম অব ডক্টরর্স। অভিযুক্তের শাস্তির দাবিতে রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপের দাবি জানিয়েছে আইএমএ।

পরে অভিযুক্ত পুলিশ কর্মকর্তা পুলক দত্তের বিরুদ্ধে ডিসি সাউথের কাছে অভিযোগও জানান তারা। সোমবার পুলক দত্তের বিরুদ্ধে আলিপুর থানায় মিছিল করে এফআইআর করতে যান চিকিৎসকরা। এ সময় পুলিশ এফআইআর নিতে রাজি না হওয়ায় রাস্তায় বসে পড়েন তারা। বেশ কয়েকজন রাস্তার উপরে শুয়েও পড়েন।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত ওসি পুলক দত্তের পক্ষ নিয়েছে কলকাতা পুলিশ। তাদের পক্ষ থেকে দেয়া এক ফেসবুকে পোস্টে প্রশ্ন করা হয়েছে, ‘যেখানে ওসির একহাতে ব্যান্ডেজ ও অন্য হাতে স্যালাইন চলছে, সেখানে তিনি কীভাবে একজন চিকিৎসকে মারধর করতে পারেন?’

এদিকে সিএমআরআই হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, পড়ে গিয়ে ডানহাতে আঘাত পাওয়ায় তাদের ওখানে ভর্তি হন যাদবপুর থানার ওসি পুলক দত্ত। তার হাতে অস্ত্রোপচার করা হয়। এরপর কর্তব্যরত চিকিৎসক শ্রীনিবাস তার খোঁজ নিতে গেলে হঠাৎই উত্তেজিত হয়ে পড়েন পুলক দত্ত। মারধর করেন তাকে। সূত্র : এম্বেলা