কুকুর থেকে বোনকে বাঁচাতে ৬ বছরের ভাইয়ের মুখে ৯০টির বেশি সেলাই

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:১১ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৭, ২০২০ | আপডেট: ১২:১১:অপরাহ্ণ, জুলাই ১৭, ২০২০

চার বছরের ছোট বোনকে কুকুর থেকে বাঁচাতে গিয়ে নির্মমভাবে আহত হয়েছে ৬ বছরের ভাই। আহত ভাইয়ের গালে ৯০টির বেশি সেলাই দিতে হয়েছে। আর এ রকম সাহসিকতার জন্য হিরো হয়ে উঠেছেন এই শিশু। সাহসিকতার জন্য এই শিশুটিকে সাম্মানিক বিশ্ব চ্যাম্পিয়ান উপাধি দিয়েছে ওয়ার্ল্ড বক্সিং ফেডারেশন।

এই সাহসকে কুর্নিশ জানিয়েছেন হলিউড অভিনেত্রী অ্যানা হ্যাথওয়ে। অ্যাভেঞ্জার্সের ‘ক্যাপ্টেন আমেরিকা’ ক্রিস ইভান্সও প্রশংসা করেছেন। এখানেই শেষ নয়, সাহসিকতার জন্য এই শিশুটিকে সাম্মানিক বিশ্ব চ্যাম্পিয়ান উপাধি দিয়েছে ওয়ার্ল্ড বক্সিং ফেডারেশন। খবর কলকাতা ২৪।

জানা যায়, ৬ বছরের ব্রিজার ওয়াকারের বাড়ি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াওমিং প্রদেশে। গত ৯ জুলাই নিজের ৪ বছরের বোনের সঙ্গেই ছিল ব্রিজার। হঠাৎই একটি জার্মান শেফার্ড প্রজাতির কুকুর ওর বোনের দিকে তেড়ে আসে। বোনকে বাঁচাতে ব্রিজার নিজেই এগিয়ে আসে। বোনের সামনে নিজে ঢাল হয়ে দাঁড়িয়ে যায়।

এভাবে বোনকে বাঁচাতে পারলেও ব্রিজার নিজেই কুকুরের হামলার মুখে পড়ে। কুকুরটি তার গাল কামড়ে ধরে। কুকুরের ধারাল দাঁতে ক্ষতবিক্ষত হয়ে যায় শিশুটির গাল। কোনওমতে কুকুরটি থেকে নিজেদের বাঁচাতে পারে এই ভাই-বোন। গুরুতর আহত ব্রিজারের ২ ঘণ্টা অস্ত্রোপচার করেন চিকিৎসকরা। ব্রিজারের গালে ৯০টিরও বেশি সেলাই দিতে হয়।

ব্রিজারের এই সাহসিকতার ঘটনা তার চাচি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করেন। এরপরই রাতারাতি হিরো হয়ে উঠে ৬ বছরের শিশুটি। সবাই তার সাহসের প্রশংসা করে।