কুমিল্লায় ঝগড়া করল স্বামী-স্ত্রীর আর লাশ পড়ল তরুনের

শাহজাদা এমরান শাহজাদা এমরান

কুমিল্লা প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৪:৪৫ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৫, ২০১৯ | আপডেট: ৪:৪৫:অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৫, ২০১৯

কুমিল্লায় স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়া থামাতে গেলে মো. ইজাজ (২৪) নামে এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

সোমবার দিবাগত রাতে নগরীর হাউজিং এস্টেটের ৩নং সেকশনের ৬৩নং বাড়িতে এই হত্যার ঘটনাটি ঘটে। ইজাজ ওই এলাকার সেকান্দর আলীর ছেলে। কুমিল্লা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো.আবদুস সালাম এ কথা নিশ্চিত করেছেন।

কুমিল্লা কোতয়ালী মডেল থানার সূত্র জানায়, কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার গজারিয়া গ্রামের মৃত সিদ্দিকুর রহমানের ছেলে মো. দুলাল হোসেন হাউজিং এস্টেট ৩নং সেকশন এলাকার শহীদুল হক দুলালের মেয়ে সানজিদা সুলতানা মুন্নি নামে এক মেয়েকে বিয়ে করে। মুন্নির স্বামী মাদকাসক্ত হয়ে পড়লে তাদের মধ্যে পারিবারিক বিরোধ শুরু হয়।

এদিকে একটি হত্যা মামলায় আসামি হয়ে স্বামী-স্ত্রী দীর্ঘদিন যাবত কারাগারে ছিলেন। তাদের দুইটি সন্তান রয়েছে। গত কয়েকদিন আগে মামলায় জামিন পায় ওই যুগল দম্পত্তি।

মুন্নি বাবার বাড়িতে থাকতেন। সোমবার রাতে দুলাল মুন্নিকে নিজ গ্রামে নিয়ে যাওয়ার জন্য আসে। এনিয়ে তাদের মধ্যে বিরোধ চরমে পৌঁছলে প্রতিবেশী ইজাজ নামের ওই যুবক ঝগড়া থামাতে যায়। পরে মুন্নির স্বামী দুলাল, স্থানীয় দুলাল ও পলাশসহ কয়েকজন বহিরাগত যুবককে নিয়ে আসে ইজাজকে মারার জন্য। পলাশ ঘটনাস্থলে এসে ইজাজকে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে আহত করে। তাকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ নেওয়া হয়। অবস্থার অবনতি দেখে তাকে ঢাকায় নেওয়ার পথে রাত সাড়ে ৯টার দিকে ইজাজ মারা যায়।

কুমিল্লা কোতয়ালী মডেল থানার পরিদর্শক(তদন্ত) সালাউদ্দিন জানান, চান্দিনা কোরপাই এলাকার ওই দুলালের নামে ৪টি হত্যা মামলা রয়েছে। হত্যা মামলায় দুলাল ও তার স্ত্রী দীর্ঘদিন কারা ভোগের পর গত কয়েকদিন পূর্বে বের হয়। মুন্নি কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আহত অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছে। ইজাজের মরদেহ কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রয়েছে। পুলিশ এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি।