কেনিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঠ্যতালিকায় বাঙালি লেখকের নাটক

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৪:৩৪ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০ | আপডেট: ৪:৩৪:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০

কেনিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঠ্যতালিকায় স্থান পেতে যাচ্ছে বাঙালি-সুইডিশ লেখক আনিসুর রহমানের দুটি নাটক । আগামী বছরে কেনিয়ার সরকারের অর্থায়নে পরিচালিত কিসি বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যকলার পাঠ্যসূচির অংশ হিসেবে আনিসুরের লেখা “দাবিত ইসাক” ও “মন্ত্রী ও হায়েনা” নাটক দু’টি পড়ানো হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যকলা বিভাগের শিক্ষার্থীরা আগামী বছর শরতকালীন সেমিস্টারে নাটক দু’টি মঞ্চে আনা হবে বলেও জানানো হয়েছে

১৮ বছর ধরে এরিত্রিয়ায় কারাবন্দী এরিত্রিয়-সুইডিশ সাংবাদিক ও নাট্যকার দাবিত ইসাককে নিয়ে প্রথম নাটকটি রচিত। দ্বিতীয় নাটকটি একজন শরণার্থীর হায়নায় রূপান্তরিত হবার প্রেক্ষাপট নিয়ে।

“মন্ত্রী ও হায়েনা” নাটকটি ২০১২ সালে সুইডেন এবং নরওয়ের বেতার থিয়েটারে প্রথম প্রযোজিত হয়েছিল। দাবিত ইসাক নাটকটি আনিসুর রহমান লিখেছেন বাংলা এবং সুইডিশ ভাষায়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সুইডিশ নাট্যকার অগাস্ট স্ট্রিন্ডবার্গ গবেষক মাহবুব সিদ্দিকী এটির ইংরেজি অনুবাদ করেছেন। বাংলাদেশের অনন্যা প্রকাশনী এবছর একুশে গ্রন্থমেলায় নাটকটির বাংলা সংস্করণ প্রকাশ করেছে|

নাটক দু’টি পাঠ্যতালিকায় অন্তর্ভুক্তি প্রসঙ্গে কোর্স শিক্ষক ড. ক্রিস্টোফার ওকেমওয়া বলেন, “দু’টি নাটকই কেনীয় সমাজের জন্য প্রাসঙ্গিক। নাটকের শিক্ষার্থীদের জন্যে অনেক শিক্ষণীয় বিষয় রয়েছে সাহিত্যকর্ম দু’টিতে।”

উল্লেখ্য, গত বছর বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা আনিসুর রহমানের এপিক মনোলগ “আমি শেখ মুজিব” সুইডেনের একটি প্রতিষ্ঠানের নাট্যকলায় স্থান পেয়েছিল।

১৯৭৮ সালে টাঙ্গাইলের মধুপুরের দিগরবাইদ গ্রামে জন্ম নেয়া আনিসুর পড়ালেখা করেছেন ঢাকা ও স্টকহোম বিশ্ববিদ্যালয়ে ভাষা, সাহিত্য, ইতিহাস, চলচ্চিত্র, নাটক ও সুইডেনের দূরদর্শন সংস্কৃতি নিয়ে। আনিসুর দেশ-বিদেশের পত্রপত্রিকায় নিয়মিত গদ্য ও পদ্য লিখেন। আনিসুর রহমানের লেখা ইংরেজি, সুইডিশ, নরওয়েজিয়ান, ড্যানিশ, স্প্যানিশ, জর্জিয়ান, সার্বিয়ান, আর্মেনিয়, ফার্সিসহ নানা ভাষায় অনূদিত ও সমাদৃত হয়েছে।