‘চলতি বছরে ৪ হাজার ইউনিয়নেই দ্রুত গতির ইন্টারনেট’

প্রকাশিত: ১২:৪৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৮ | আপডেট: ১২:৪৬:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৪, ২০১৮

চলতি বছরের মধ্যেই দেশের চার হাজার ইউনিয়নে দ্রুতগতির ইন্টারনেট সেবা সরবরাহ নিশ্চিত করা হবে। গ্রাম ও শহরের ব্যবধান কমিয়ে ডিজিটাল প্লাটফর্মকে আরও প্রসারিত করতেই সরকার এই উদ্যোগ নিয়েছে বলে জানিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক।

মঙ্গলবার ঢাকার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ‘দারাজ সেলার সামিটে’ একথা জানান তিনি। তিনি বলেন, ‘গত নয় বছরে বাণিজ্যিক ও সরকারি কার্যক্রমের জন্য আমরা জেলা-উপজেলা থেকে শুরু করে দুই হাজার ইউনিয়নে ফাইবার অপটিক কেবল ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টার পর্যন্ত নিয়ে গিয়েছি। ২০১৮ এর মধ্যে আমরা প্রায় চার হাজার ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টার পর্যন্ত দ্রুত গতির ইন্টারনেট নিয়ে যাব।’

বর্তমানে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা নয় কোটি জানিয়ে পলক বলেন, ‘১৬ কোটি মানুষের মধ্যে নয় কোটিই ইন্টারনেট ব্যবহারকারী। আজ থেকে নয় বছর আগে ২০০৮ এ দেশে যেটা ছিল মাত্র নয় লাখ, নয় বছরের ব্যবধানে তা নয় লাখ থেকে নয় কোটিতে উন্নীত হয়েছ।’

ইন্টারনেটের খরচ কমানোর ফলেই ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে বলে মনে করেন তিনি।

পলক বলেন, ‘ইন্টারনেট সংযোগ সহজলভ্য ও সুলভ মূল্যে সবার কাছে পৌঁছে দিতে না পারলে আমরা ই-কমার্স বা ডিজিটাল প্লাটফর্ম করতে পারব না।’

বর্তমানে থ্রি-জি ও ফোর জি ইন্টারনেট সংযোগ ঢাকা ও এর বাইরে রয়েছে বলে জানান তিনি।

পলক বলেন, ‘দারাজ সারাদেশে তিন হাজার হাব তৈরি করেছে যেখানে তারা যে কোনো পণ্য লেনদেন করতে পারবে। এই তিন হাজার পার্টনারদের সাথে আমরা যদি পাঁচ হাজার দুইশ ৭২টি ডিজিটাল সেন্টারকে যুক্ত করতে পারি, তাহলে আমরা শহর আর গ্রামের মধ্যে বৈষম্য কমিয়ে ডিজিটাল বিপ্লব ই-কমার্সের ক্ষেত্রে করতে পারব।’