ছবিটি ফোনের ওয়ালপেপার করলেই সর্বনাশ!

প্রকাশিত: ৮:১১ অপরাহ্ণ, জুন ৪, ২০২০ | আপডেট: ৮:১১:অপরাহ্ণ, জুন ৪, ২০২০

কোনও লিঙ্ক বা অ্যাপ নয়। খালি একটা সুন্দর প্রাকৃতিক দৃশ্য। দেখে ওয়ালপেপার করার ইচ্ছা হতেই পারে। কিন্তু, খবরদার। এই ছবি ওয়ালপেপার করার সঙ্গে সঙ্গেই মারাত্মকভাবে হ্যাং হয়ে যাচ্ছে স্মার্টফোন। আর এই লকডাউনের বাজারে স্মার্টফোন হ্যাং হলে যে তা যথেষ্ট মাথা ব্যাথার কারণ হয়ে দাঁড়াবে তা বলাই বাহুল্য।

বিশ্বাস হচ্ছে না? অবশ্য বিশ্বাস না হওয়াটাই স্বাভাবিক। একটা ওয়ালপেপার সেট করলে কীভাবে ফোন হ্যাং হবে! টুইটারে জনৈক অ্যাকাউন্টের সতর্কতার বার্তাকে উপেক্ষা করেই অনেকে তাঁদের স্মার্টফোনে ডাউনলোড করে ওয়ালপেপার করেন এই ছবি। আর তারপরেই হ্যাং হয়ে যায় তাঁদের স্মার্টফোন। সম্পূর্ণ ব্ল্যাঙ্ক হয়ে স্ক্রিন অন-অফ ও বন্ধ হয়ে যায় পাকাপাকিভাবে।

টিপস্টার আইস ইউনিভার্স টুইটে ছবিটার ব্যাপারে সতর্কবার্তা দিয়েছে। সেখানে বলা হয়, এই ছবি ওয়ালপেপার হিসেবে কখনও ব্যবহার করবেন না। এই বার্তা বিশেষভাবে স্যামসাংয়ের ব্যবহারকারীদের প্রযোজ্য। কেউ এই ছবি পাঠালে তা এড়িয়ে চলুন।


এই পোস্টের নিচে অনেক টুইটার ব্যবহারকারী জানিয়েছেন, তাদের ফোনেও একই সমস্যা দেখা দিয়েছে। ওয়ালপেপার হিসেবে দেওয়া মাত্র স্বয়ংক্রিয়ভাবে অন অফ হচ্ছে তাদের ফোন। কোনো কোনো ক্ষেত্রে ফোনে ফ্যাক্টরি রিসেট দেওয়ার প্রয়োজন পড়ছে।

প্রযুক্তি বিষয়ক সংবাদ মাধ্যম অ্যান্ড্রয়েড অথোরিটির এক সাংবাদিক জানিয়েছেন, ওয়ালপেপার হিসেবে ছবিটি সেট করলে ফোন বার বার অন ও অফ হচ্ছে। ফলে ফোনের লক খোলা যাচ্ছে না, রিস্টার্টেও মিলছে না সমাধান।

কী কারণে এ সমস্যা হচ্ছে তার কোনো ব্যাখ্যা দেয়নি গুগল। তবে বিবিসিকে ডেভেলপার কেন মুনরো ও ডেভ লজ জানিয়েছেন, ডিজিটাল ছবির মান এখন অনেক ভালো হয়েছে। ছবিটার ক্ষেত্রে এমন কোনো রঙ ব্যবহার করা হয়েছে যা ফোন চিনতে পারছে না। ফলে এই অচেনা রঙের কারণে ফোন ক্র্যাশ করছে।

স্যামসাং ও গুগলের পিক্সেল ফোনেও এ সমস্যা দেখা গেছে। ১১ জুন থেকে আপডেট পাঠানো শুরু করবে স্যামসাং। আপডেট পাঠানোর ব্যাপারে গুগল এখনও কিছু জানায়নি।