জেলে যেতে হতে পারে রিয়াল তারকাকে!

টিবিটি টিবিটি

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ১:৩১ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৩, ২০২০ | আপডেট: ১:৩১:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৩, ২০২০

আরও একবার নিজেকে ঝামেলায় ফেললেন রিয়াল মাদ্রিদের সার্বিয়ান ফরোয়ার্ড লুকা ইয়োভিচ। নিজ দেশ সার্বিয়ার করোনাভাইরাস প্রটোকল ভঙ্গ করায় ছয় মাসের জেল হতে পারে ২২ বছর বয়সী এ তারকা ফরোয়ার্ডে।

২০১৯ সালে আইনট্রাখট ফ্রাংকফুট থেকে রিয়াল মাদ্রিদে যোগ দেয়ার পর থেকে খুব কম সময়েই মাঠের কোনো ঘটনায় শিরোনাম হয়েছেন ইয়োভিচ। বরং মাঠের বাইরের ঘটনায় বারবার আলোচনার বিষয়বস্তু হয়েছেন তিনি।

সে ধারাবাহিকতায় এবার হাজতবাস অপেক্ষা করছে তার সামনে। গত মার্চে করোনাভাইরাসের কারণে পুরো রিয়াল মাদ্রিদ স্কোয়াড যখন কোয়ারেন্টিনে ছিল, তখন সেখানে না থেকে তিনি ফিরেছিলেন দেশে।

সার্বিয়ার প্রসিকিউটর অফিস থেকে জানানো হচ্ছে, তখন দেশে আসলেও প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যবিধি মানেননি ইয়োভিচ। তাই তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে যে আইন অনুসরণ করতে হবে, সেটির ব্যাপারে শুক্রবার সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের খবর, এরই মধ্যে শাস্তি থেকে বাঁচার জন্য ৩০ হাজার ইউরো বা ত্রিশ লাখ টাকার বেশি জরিমানা দিয়েছেন ইয়োভিচ। তবে সার্বিয়ান প্রসিকিউটররা স্বাস্থ্যবিধি অমান্য করার অপরাধে তার ছয় মাসের জেলের আবেদন করবেন।

সব সমস্যার শুরুটা হয়েছে মূলত ইয়োভিচ নিজের সন্তানসম্ভবা প্রেমিকাকে দেখতে স্পেন ছেড়ে সার্বিয়ায় আসায়। তবে তখন তিনি দেশে ফিরে করোনাবিধি মান্য করলেই আর কোনো ঝামেলায় পড়তে হতো না। কিন্তু তখন কোয়ারেন্টাইনে না থেকে ৩০ বছর বয়সী প্রেমিকা সোফিজা মিলোসেভিচকে নিয়ে সার্বিয়ার রাজধানী বেলগ্রেডের অনেক জায়গায় ঘুরতে গিয়েছেন ইয়োভিচ। যেসব ছবি দেখা গেছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। আর এ কারণেই মূলত উঠেছে করোনাবিধি অমান্য করার অভিযোগ।