ঝিনাইদহের পাতিবিলায় তিন মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে নিহত ৩ আহত ৪

শহিদ জয় শহিদ জয়

যশোর প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৯:০৫ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২১ | আপডেট: ৯:০৫:অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২১

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ-কোটচাঁদপুর সড়কের পাতিবিলা নামক স্থানে তিন মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে শিমুল বিশ্বাস (২৮), আকরাম হোসেন (৪০) ও সোহেল রানা নামে তিনজন নিহত হয়েছেন। এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও চারজন। এরমধ্যে একজনকে আশংকাজনক অবস্থায় ঢাকায় রেফার করা হয়েছে। নিহত দুই জনের লাশ যশোর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

শুক্রবার বিকেল ৪টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত শিমুল বিশ্বাস কোটচাঁদপুরের দুধসর গ্রামের হরেন্দ্রনাথ বিশ্বাসের ছেলে এবং আকরাম হোসেন কালীগঞ্জের ভাটাডাঙ্গা গ্রামের আনার আলীর ছেলে এবং সোহেল রানা একই গ্রামের জুয়েলের ছেলে।

আহতরা হলেন, কালীগঞ্জের বেথুলী গ্রামের দুখীরাম সাহা, আলী হোসেন ও তার ছেলে সজীব হোসেন এবং জিহাদ হোসেন। তাদের মধ্যে জিহাদ হোসেনকে যশোর জেনারেল হাসপাতাল থেকে ঢাকায় রেফার করা হয়েছে।

কালীগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার শেখ মামুনুর রশিদ বলেন, নিহত শিমুল বিশ্বাস মোটরসাইকেলযোগে কালীগঞ্জ থেকে কোটচাঁদপুরের দিকে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে পাতবিলা তেল পাম্পের সামনে পৌঁছালে কালীগঞ্জগামী একটি যাত্রীবাহী বাসকে অতিক্রম করার সময় বাসের পিছন থেকে একটি মোটরসাইকেল বাসটিকে অভারটেকিং করতে যায়। এতে দু’ মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এসময় কালীগঞ্জ থেকে আসা অন্য একটি মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ওই দু’মোটরসাইকেলে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই শিমুল মারা যান।

স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে প্রথমে কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে তাদের অবস্থার অবনতি হলে সন্ধ্যায় যশোর জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।
জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার অমিয় দাস জানান, যশোরে আনার আগেই মারা যান আকরাম হোসেন। ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান সোহেল রানা। অন্যদিকে, জিহাদের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে ঢাকায় রেফার করা হয়েছে।