টালিউড অভিনেতা বিশ্বজিৎ চক্রবর্তীর ৬ মাসের কারাদণ্ড

টিবিটি টিবিটি

বিনোদন ডেস্ক

প্রকাশিত: ৫:৫২ অপরাহ্ণ, জুলাই ২৩, ২০১৯ | আপডেট: ৫:৫২:অপরাহ্ণ, জুলাই ২৩, ২০১৯

চেক বাউন্সের একটি মামলায় টালিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা বিশ্বজিৎ চক্রবর্তীকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। শুক্রবার পশ্চিমবঙ্গের আলিপুরের মুখ্য বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেট শুভদীপ চৌধুরী এ রায় দেন।

তবে এখন তিনি জামিনে রয়েছেন। এ বিষয়ে অবশ্য কোনো মন্তব্য করতে চাননি ওই অভিনেতা। তিনি জানিয়েছেন যা বলার তা তার আইনজীবী জানাবেন।

আনন্দবাজারের খবর অনুযায়ী, মামলার রায়ে বলা হয়েছে, যে টাকা বিশ্বজিৎ চক্রবর্তী ধার নিয়েছিলেন, তা ফেরত দেওয়ার পাশাপাশি অতিরিক্ত ৩০ শতাংশ টাকা প্রাপককে দিতে হবে। অন্তত ১৪ লক্ষ টাকা এক মাসের মধ্যে ফেরত দিতে হবে ওই ব্যবসায়ীকে। না দিলে আরও ছ’মাসের কারাবাসের নির্দেশ দেবে আদালত।

তবে গণমাধ্যমকে এ বিষয়ে কোনও মন্তব্য করতে চাননি অভিনেতা। তিনি বলেন, ‘যা বলার তা আমার আইনজীবী বলবেন।’

অভিনেতার আইনজীবী সৈকত দত্ত মজুমদার জানান, নিয়ম অনুযায়ী কোনও অপরাধে কারও দু’বছর বা তার কম সাজা হলে তৎক্ষণাৎ আদালত তাকে জামিনে মুক্তি দেয়। এ ক্ষেত্রেও তার মক্কেল জামিন পেয়েছেন। এক মাসের মধ্যে ওই রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হবে।

তিনি আরও জানান, ধর্মতলার একটি সংস্থার কাছ থেকে ২০১৫ সালে ওই অভিনেতা ব্যক্তিগত কারণে দশ লক্ষ টাকা ধার নেন। সংস্থার কর্তা তথা ব্যবসায়ী দর্শন খামানির অভিযোগ, বিশ্বজিৎবাবু ধার শোধ করতে গিয়ে তাকে যে ক’টি চেক দেন, সেগুলো ব্যাংকে জমা দেওয়ার পরে বাউন্স করে। অর্থাৎ ওই অভিনেতার ব্যাংক অ্যাকাউন্টে পর্যাপ্ত টাকা ছিল না।

এর পরেই ওই অভিনেতার বিরুদ্ধে আলিপুর আদালতে মামলা দায়ের করেন দর্শন।

তিনি আরও জানান, ২০১৭ সালে মামলাটি দায়ের হয়। দু’বছর ধরে তা চলার পরে কিছু দিন আগে শুনানি শেষ হয়। এরপর গত শুক্রবার রায় দেন বিচারক।