দুর্নীতির দায়ে অস্ট্রিয়ায় সাবেক অর্থমন্ত্রীর কারাদণ্ড

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ৯:১৭ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৫, ২০২০ | আপডেট: ৯:১৭:অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৫, ২০২০

দুর্নীতির দায়ে অস্ট্রিয়ায় সাবেক অর্থমন্ত্রী কার্ল-হেইঞ্জ গ্র্যাসারকে আট বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

মালিকানাধীন হাজার হাজার অ্যাপার্টমেন্ট বিক্রির চুক্তিতে ঘুষ ও মিথ্যা দেওয়ার প্রমাণ পাওয়া শুক্রবার (৪ ডিসেম্বর) ভিয়েনার একটি আদালত এ রায় দেন।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম বিবিসি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

আদালত কার্লের ৯০ লাখের বেশি ইউরো ঘুষ নেওয়ার প্রমাণ পাওয়ার কথা জানায়। আদালত বলছে, ৬০ হাজার অ্যাপার্টমেন্ট বিক্রির সময় নিলামের তথ্য সুনির্দিষ্ট একটি প্রতিষ্ঠানের কাছে পাচার করেন কার্ল ও একজন মধ্যস্থতাকারী। এতে প্রতিদ্বন্দ্বীদের হারিয়ে সহজেই ওই প্রতিষ্ঠান প্রকল্পটি হাতিয়ে নেয়। ৯৬১ মিলিয়ন ইউরোতে ওই প্রতিষ্ঠান অ্যাপার্টমেন্ট গুলো কিনে নেয়। তবে তিন বছর পর অ্যাপার্টমেন্টগুলোর ক্রয়মূল্য থেকে তিনগুণ বেশি দাম চায় ওই প্রতিষ্ঠান। ঘুষ হিসেবে প্রতিষ্ঠানটি ক্রয়মূল্যের ১% (৯৬ লাখ ইউরো) ফ্রিডম পার্টি অব অস্ট্রিয়ার সাবেক সাধারণ সম্পাদক ওয়াল্টার মিশবের্গার ও লবিস্ট গোশেগারকে দেয়। এ মামলায় মিশবের্গার ও গোশেগারকেও কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

তবে কার্ল এ অপরাধের কথা অস্বীকার করেছেন। রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করবেন বলেও জানান তিনি।

২০০০ সালের অস্ট্রিয়ার সবচেয়ে কমবয়সী অর্থমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করে কার্ল-হেইনস। তবে শুধু সাবেক অর্থমন্ত্রী নয় মোট ১৪ জন অর্থ পাচার, ঘুষ গ্রহণ ও চুক্তির নথি বিকৃতির দায়ে হওয়া মামলার আসামী।