ধর্ম মন্ত্রণালয়কে দুর্নীতিমূক্ত করতে যা যা প্রয়োজন, করবো : ধর্মমন্ত্রী

প্রকাশিত: ৪:৫১ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৩০, ২০১৯ | আপডেট: ৪:৫১:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৩০, ২০১৯
ধর্ম প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শেখ মো. আবদুল্লাহ। ফাইল ছবি

‘আমি দুর্নীতি করব না, কাউকে করতেও দেব না। ধর্ম মন্ত্রণালয়কে দুর্নীতি, অনিয়ম, অশান্তি ও বিশৃঙ্খলামুক্ত করতে যা যা করণীয় তা-ই করব’ বলে মন্তব্য করেছেন ধর্ম প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শেখ মো. আবদুল্লাহ। তিনি বলেছেন, ‘এ মন্ত্রণালয়ের নামের সার্থকতা কাজের মাধ্যমে প্রমাণ করব।’

বুধবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে রিলিজিয়ার্স রিপোর্টার্স ফোরাম (আরআরএফ)-এর কার্যনির্বাহী সদস্যরা তার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করতে গেলে তিনি এমন মন্তব্য করেন।

আরআরএফ সভাপতি ফয়েজ উল্লাহ ভূইয়া ও সাধারণ সম্পাদক উবায়দুল্লাহ বাদলের নেতৃত্বে উপস্থিত নেতৃবৃন্দ ও সদস্যরা ধর্ম প্রতিমন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান। এ সময় ধর্ম প্রতিমন্ত্রী তাদের ধন্যবাদ জানান।

মতবিনিময়কালে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আসন্ন হজ কার্যক্রমকে নিষ্কন্টক, সমালোচনাবিহীন ও মানুষের গ্রহণযোগ্য করতে গণমাধ্যমকর্মীসহ সকলের সহযোগিতা ও পরামর্শ কামনা করেন। তিনি বলেন, “প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রায়শই বলে থাকেন ‘হাজিরা আল্লাহর মেহমান। তাদের চোখের পানি তিনি দেখতে পারেন না।’ তারই একজন কর্মী হিসেবে, ধর্ম প্রতিমন্ত্রীর পদে দায়িত্ব থাকাকালে যে সকল এজেন্সি কিংবা তাদের প্রতিনিধি, যারা হাজিদের চোখের পানি ফেলতে বাধ্য করবেন আমি তাদের চোখ দিয়ে পানি নয়, প্রয়োজনে রক্ত ঝরাব।”

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, ‘প্রতিমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বপালনে আমি নবীন হলেও ইতোমধ্যে আন্তরিক প্রচেষ্টা ও সদিচ্ছায় আসন্ন বিশ্ব ইজতেমা নিয়ে দুপক্ষের মধ্যে সৃষ্ট বিরোধ নিষ্পত্তি হয়েছে।’

মতবিনিময় সভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আরআরএফ সহ-সভাপতি মিয়া হোসেন, যুগ্ম সম্পাদক মোস্তাক আহমদ, কোষাধ্যক্ষ রকীবুল হক, দফতর সম্পাদক কাওসার আজম, প্রচার সম্পাদক কামরুজ্জামান বাবলু, নির্বাহী সদস্য শামসুল ইসলাম, মনিরুজ্জামান উজ্জ্বল, মোহসিনুল করিম লেবু ও রফিক আহমেদ।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন ফোরাম সদস্য খালিদ সাইফুল্লাহ, মাসউদুল হক, বাহরাম খান ও জামাল উদ্দিন।

মন্ত্রণালয়ের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন প্রতিমন্ত্রীর একান্ত সচিব (পিএস) খন্দকার ইয়াসির আরেফীন, সহকারী একান্ত সচিব (এপিএস) শেখ নাজমুল হক সৈকত, সিনিয়র তথ্য কর্মকর্তা আনোয়ার হোসাইন প্রমুখ।