ধর্ষণের অভিযোগ সম্পর্কে যা বললেন রোনালদো

টিবিটি টিবিটি

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ৯:০৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০১৮ | আপডেট: ৯:০৬:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০১৮

পর্তুগিজ সুপারস্টার ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর নারীপ্রীতি নিয়ে নতুন করে বলার কিছুই নেই। বান্ধবী থাকা সত্ত্বেও অসংখ্য নারীর সঙ্গে শারিরীক সম্পর্কে লিপ্ত হয়েছেন তিনি। সম্প্রতি তার বিরুদ্ধে উঠেছে ধর্ষণের মতো গুরুতর অভিযোগ। কিন্তু জুভেন্তাস তারকা এসব অভিযোগকে ‘ভুয়া’ বলে উড়িয়ে দিয়ে বললেন, মিডিয়াওলারা এসব বেঁচে ব্যবসা করে।

সম্প্রতি জার্মানির একটি নিউজ ম্যাগাজিনে এই অভিযোগ প্রকাশিত হয়। এরপরই তোলপাড় শুরু হয় ফুটবলবিশ্বে। নিজের বিরুদ্ধে অভিযোগ অস্বীকার করার পাশাপাশি সেই নিউজ ম্যাগাজিনের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার সিদ্ধান্তও নিয়েছেন রোনালদো। এই অভিযোগকে সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন বলেও চিহ্নিত করেছেন তিনি ইনস্টাগ্রামে এক লাইভ ভিডিওতে।

ভিডিওতে হাসওজ্জ্বল রোনালদোকে বলতে শোনা যায়, ‘না, না, না, না। যা বলা হচ্ছে, তা ভুয়া খবর। আমার নাম ব্যবহার করে প্রচারে আসাই উদ্দেশ্য। এটা স্বাভাবিক ব্যাপার। আমার নাম বলে ওরা বিখ্যাত হতে চাইছে। তবে আমি খুশি আছি। সবকিছু ঠিকঠাকই আছে।’

উল্লেখ্য, ওই জার্মান ম্যাগাজিনের খবর অনুসারে ২০০৯ সালের জুনে লাস ভেগাসে হোটেলের ঘরে এক মার্কিন তরুণীকে ধর্ষণ করেছিলেন রোনালদো। ক্যাথরিন মায়োরগা নামে ৩৪ বছর বয়সী ওই তরুণীর অভিযোগ, মুখ বন্ধ রাখার জন্য তাকে বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৩ কোটি টাকা দিয়েছিলেন সিআর সেভেন। লাস ভেগাসের নাইটক্লাবে দুজনের ছবিও ফাঁস হয়েছে। রোনালদো নাকি তখন স্বীকারও করেছিলেন যে, ক্যাথরিন সম্মত হওয়ার পরই শারীরিকভাবে ঘনিষ্ঠ হয়েছিলেন।

কিন্তু সেই মার্কিন তরুণী এবং তার আইনজীবি এখন দাবি করছেন যে, রোনালদো জোর করেই শারিরীক সম্পর্ক করেছিলেন। এবার দেখার বিষয়, কোথাকার জল কোথায় গিয়ে গড়ায়!