নিজের হাত খুঁজে পেয়েছেন স্মিথ

টিবিটি টিবিটি

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ৬:৪১ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৪, ২০২০ | আপডেট: ৬:৪১:অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৪, ২০২০

আইপিএলটা খুব বাজে কেটেছে স্টিভেন স্মিথের। বহু আশা নিয়ে তাঁকে দলে টেনেছিল রাজস্থান রয়্যালস। কিন্তু দলের সেরা ব্যাটসম্যানের তকমার মান রাখতে পারেননি। মাত্র ২৫.৯১ গড়ে রান নিয়েছেন, স্ট্রাইকরেটটাও খুব একটা ভালো ছিল না। তাঁর বাজে ফর্ম সাহসী করে তুলেছে ভারতকে। অস্ট্রেলিয়া সিরিজে স্মিথকে শর্ট বল দিয়ে ঘায়েল করার পরিকল্পনার কথা প্রকাশ্যেই জানাচ্ছে তারা। প্রতিপক্ষের সেরা ব্যাটসম্যানকে দমিয়ে রাখতে পারলেই যে সিরিজ জেতার কাজটা সহজ হয়ে যাবে।

স্টিভ স্মিথও বসে থাকেননি। ১ নভেম্বর থেকে প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেট খেলছেন না। কিন্তু এ সময়টাই কাজে লাগিয়েছেন। নেটে অস্ট্রেলিয়া দলের বোলারদের বিপক্ষে খেলেই নিজের সেরাটা খুঁজে পাওয়ার চেষ্টা করছেন। তিন সপ্তাহেই সাফল্যের দেখা পেয়েছেন। কোয়ারেন্টিনের সময়টা কাজে লাগিয়েই নাকি নিজের সেরা রূপের দেখা পেয়ে গেছেন।

ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে স্মিথ বলেন, ‘আমার দিক থেকে আমি যথেষ্ট ধারাবাহিক ছিলাম না। সাম্প্রতিক সময়ে খুব বেশি রান করতে পারিনি। আমি সত্যিকারের ছন্দে ছিলাম না। তবে গত কয়েক দিনের অনুশীলনে নিজের আত্মবিশ্বাস ফিরে পেয়েছি। সেদিন নেটে ব্যাটিং অনুশীলনের পর অ্যান্ড্রু ম্যাকডোনাল্ডকে (সহকারী কোচ) আমি বলেছি, আমি আবারও আমার হাতকে খুঁজে পেয়েছি।’

করোনার কারণে দীর্ঘদিন ক্রিকেট বন্ধ থাকার পর গত জুলাইয়ে টেস্ট সিরিজের আয়োজন করে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। পরবর্তীতে দেশের মাটিতে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলে ইংল্যান্ড। ওই সিরিজে ব্যাট হাতে সুপার ফ্লপই ছিলেন স্মিথ। সাউদাম্পটনে হওয়া তিন ম্যাচে যথাক্রমে ১৮, ১০ ও ৩ রান করেন।

এরপর সংযুক্ত আরব আমিরাতে আইপিএলে ১৪ ম্যাচে স্মিথের সংগ্রহ ২৫.৯১ গড়ে ৩১১ রান। তাই সাম্প্রতিক সময়ে নিজের পারফরমেন্সে হতাশায় ছিলেন স্মিথ, ‘গত কয়েকদিনে আমি নিজেকে খুঁজে পেয়েছি। আমি আমার হাত খুঁজে পেয়েছি, আমি সত্যিই উত্তেজিত। এটা করতে আমার সাড়ে তিন থেকে চার মাস লাগল। নেটে বেশ স্বাচ্ছেন্দ্যে ব্যাট করেছি। গোঁড়ালির পেছন থেকে ঠিকভাবে ব্যাটিং হচ্ছে এবং ব্যাটের ওপর ঠিকভাবে আমার হাত আসছে। আমি এভাবেই নিজেকে ফিরে পেতে চেয়েছিলাম। আমি এখন অনেক বেশি আত্মবিশ্বাসী।’

ভারতের বিপক্ষে আসন্ন সিরিজে রানের বন্যায় ভাসতে চান স্মিথ। তিনি বলেন, ‘গত সিরিজে আমি ও ওয়ার্নার ছিলাম না। তবে এবারের সিরিজটি আমাদের জন্য চ্যালেঞ্জের। আমি ভারতের বিপক্ষে সিরিজে অনেক বেশি রান করতে চাই। এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটি সিরিজ হতে চলেছে। ব্যক্তিগতভাবে আমার কাছে অ্যাশেজ ও ভারত সিরিজ সবচেয়ে বড়। এমন সিরিজে রান করতে খুবই ভালো লাগে।’