নিজে মরে বাঁচালেন শতাধিক প্রাণ

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১:৪৩ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০১৮ | আপডেট: ১১:৪৩:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০১৮

নিজেদের প্রাণ বাঁচাতে অন্য সহকর্মীরা আতঙ্কে পালিয়ে যাচ্ছিলেন, ঠিক তখনই অন্যদের প্রাণ বাঁচাতে ব্যস্ত ছিলেন তিনি। মাত্র ২১ বছরের এ তরুণের নাম অ্যান্থোনিয়াস গুনাওয়ান আগং।

নিজের জীবনের বিনিময়ে শতাধিক মানুষের প্রাণ বাঁচিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ার এই এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলার। তার এমন ত্যাগে জাতীয় বীরে পরিণত হয়েছেন।

স্থানীয় সময় শুক্রবার ভূমিকম্পের পর সুনামিতে আক্রান্ত ইন্দোনেশিয়ায় এখন পর্যন্ত অন্তত ৪০০ লোক নিহত হয়েছে।

জানা গেছে, ভূমিকম্পের আঘাতে অন্যান্য সহকর্মীরা আতঙ্কে পালিয়ে গেলেও একটি বিমানের নিরাপদ উড্ডয়ন নিশ্চিত করেন অ্যান্থোনিয়াস। এতে প্রাণে বেঁচে যান ওই বিমানের যাত্রী ও ক্রুসহ শতাধিক আরোহী। তবে নিজেকে বাঁচাতে পারেননি তিনি।

ভূমিকম্পে বিমানবন্দরটির রানওয়েতে গভীর ফাটলের সৃষ্টি হয়। সেসময় শতাধিক যাত্রীসহ বাটিক এয়ারের একটি ফ্লাইট-৬৩২১ উড্ডয়নের প্রস্তুতি নিচ্ছিল।

ওই সময়ই ৭.৫ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হানে। তখন পালু শহরের মুতিয়ারা সিসি আল-জুফরিয়ে বিমানবন্দরে কাজ করছিলেন আগং।

ইন্দোনেশিয়ার সুলাওয়েসি দ্বীপের মধ্যাঞ্চলে শক্তিশালী ভূমিকম্প ও এরপর ভয়াবহ সুনামির আঘাতে ৩৮৪ জনের মৃত্যুর খবর জানিয়েছে স্থানীয় প্রশাসন।