নোয়াখালীতে গণধর্ষনের আসামী ইউপি চেয়ারম্যানের বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ ও ঝাড়ু মিছিল

মানিক ভূঁইয়া মানিক ভূঁইয়া

নোয়াখালী প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৮:৫৫ অপরাহ্ণ, মার্চ ৩, ২০২১ | আপডেট: ৮:৫৭:অপরাহ্ণ, মার্চ ৩, ২০২১

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জের আলাইয়ারপুরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে গণধর্ষনের মামলায় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনিসুর রহমান আনিসকে আসামী করে মামলা করেছের পুলিশ। দোষী ইউপি চেয়ারম্যানের দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করে মানববন্ধন, বিক্ষোভ ও ঝাড়ু মিছিল করেছে এলাকাবাসী।

বুধবার বিকেলে আলাইয়ারপুর ইউনিয়ন পরিষদের সামনে চন্দ্রগঞ্জ বাজার পর্যন্ত ঘন্টাব্যাপী এ কর্মসুচিতে এ এলাকার সর্বস্তুরের মানুষ অংশগ্রহণ করেন।

এসময় উপস্থিত অন্যানদের মাঝে বক্তব্য রাখেন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সহসভাপতি আবদুর রহিম, আওয়ামীলীগ নেতা মহসিন ভুঁইয়া মোহন, ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি আল হেলাল,যুবলীগের সাধারন সম্পাদক মোসলেহ উদ্দিন, সালাহ উদ্দিন মোহন ও ছাত্রলীগ নেতা রাসেল, সুলতান টিটু সহ আরো অনেকে।

সমাবেশে বিক্ষুদ্ধ এলাকাবাসী বলেন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনিসুর রহমান আনিস বিগত পাঁচ বছর নানা অপকর্ম করে আসছে এবং তিনি নিজে উক্ত মাদ্রাসা ছাত্রীকে বাসায় এনে বেশ কয়েকবার গণর্ধষণ করেছেন। তারা উক্ত চেয়ারম্যানের দৃষ্টান্ত বিচার দাবি করেন।

প্রসঙ্গত, বেগমগঞ্জ উপজেলার আলাইয়াপুর ইউনিয়নে মাদ্রাসা ছাত্রীকে একাধিক বার গণধর্ষণ, ভিডিও ধারণ ও অপহরণের ঘটনায় দায়ের করা মামলার বাদী বিউটি আক্তারের বিরুদ্ধে মঙ্গলবার বেগমগঞ্জ মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) রুহুল আমিন উল্টো নিজে বাদী হয়ে মানব পাচার দমন আইনে মামলা দায়ের করে। মামলায় মাদ্রাসা ছাত্রীর মা বিউটি ছাড়াও আলাইয়াপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনিসুর রহমানসহ আরও ৫ জনকে আসামীকরা করা হয় ।

তিনি আরো জানান, ভিকিটিম অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আমলী আদালত-৩ এ বিচারকের কাছে সেচ্ছায় ২২ধারায় জবানবন্দি প্রদান করেন। এসময় সে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনিস নিজ বাড়ীতে রেখে তাকে একাধিকবার ধর্ষণ করার কথাসহ আরো কয়েক জনের নাম উল্লেখ করেন।