পদত্যাগের ৪৫ দিনের মাথায় দলে ফিরলেন কাদের মির্জা

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৭:৪৭ অপরাহ্ণ, মে ১৭, ২০২১ | আপডেট: ৭:৪৭:অপরাহ্ণ, মে ১৭, ২০২১

মেছবাহ উদ্দিন, কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধিঃ নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা পদত্যাগের ৪৫ দিনের মাথায় দলে ফিরলেন।

তিনি বলেছেন, আপনারা প্রশ্ন করতে পারেন আমি কেন পদত্যাগ করেও আওয়ামীলীগের ব্যানারে অনুষ্ঠান করছি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বাহিরে যাওয়ার আমার কোন সুযোগ নেই। আমার পদত্যাগ পত্র গ্রহণ করা হয়নি। আওয়ামীলীগ আমার রক্তের সাথে মিশে আছে। নেত্রীর সবুজ সংকেতে আমি আবার আওয়ামীলীগের ছায়াতলে ফিরে এলাম। চার পাঁচজন ছাড়া যারা আমাদের সাথে আসতে চায় তাদেরকে স্বাগত জানাব। আমি অস্ত্রের রাজনীতিতে বিশ^াসী নই। আর কারো মায়ের বুক খালি হউক তা আমি চাই না। আমার আন্দোলন, দল একটি সিস্টেমে আসার আন্দোলন। আমরা কারো বিরুদ্ধে বক্তব্য দিতে চাই না।

রবিবার (১৬ মে) বিকেল ৫টায় বসুরহাট পৌর মিলনায়তনে নিজের অনুসারী উপজেলা আওয়ামীলীগ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

এ সময় শত শত নেতাকর্মী বঙ্গবন্ধু, শেখ হাসিনা, ওবায়দুল কাদের ও মির্জা কাদের’র নামে শ্লোগানে শ্লোগানে মুখরিত করতে থাকে সভাস্থল। মঞ্চ থেকে তাদের আবেগকে যেন বারবার অনুরোধ করেও থামাতে ব্যর্থ হচ্ছিল নেতৃবৃন্দ।

অনুষ্ঠানে উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহসভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু নাছেরের সভাপতিত্বে ও নাজমা শিপার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ইউনুছ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা আজিজুল হক, পৌরসভা আওয়ামীলীগের সভাপতি জামাল উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামীলীগের মুক্তিযোদ্ধাবিষয়ক সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা জামাল উদ্দিন, পৌরসভা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল খায়ের, ২নং চরপার্বতী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেন কামরুল, উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগ সহ সভাপতি আক্তার জাহান বকুল, উপজেললা আওয়ামীলীগ সহ সভাপতি মেছবাহ চৌধুরী, হাসান ইমাম বাদল, পৌরসভা মহিলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ফারভিন আক্তার, উপজেলা যুবলীগ সাবেক সাধারণ সম্পাদক শেখ ফরিদ, জেলা ছাত্রলীগ সহ সভাপতি তাশিক মির্জা কাদের, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি আরিফুর রহমান, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন সজল প্রমুখ।

কাদের মির্জা আরো বলেন, সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সাহেব যেটা বলবেন; সেটাই হবে। তিনি যাদের নাম ঘোষণা করবেন তারাই আওয়ামীলীগের নেতা হবেন। তবে আমরা ইস্কান্দার হায়দার চৌধুরী বাবুল ও মো. ইউনুছের নেতৃত্বে আছি। আশা করি তিনি (ওবায়দুল কাদের) আমাদের নিরাশ করবেন না। এছাড়া কেন্দ্র থেকে সিদ্ধান্ত না আসা পর্যন্ত সবাইকে ধৈর্য ধরার অনুরোধ জানান।

পরে উপস্থিত নেতাকর্মীদের মিষ্টিমুখ করান কাদের মির্জা।