পিএসজির অন্যরকম ‘ট্রেবল’

টিবিটি টিবিটি

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ২:৪২ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১, ২০২০ | আপডেট: ২:৪২:অপরাহ্ণ, আগস্ট ১, ২০২০

পেনাল্টি শুটআউটে ঘরোয়া ট্রেবল জিতে নিল পিএসজি। নির্ধারিত ৯০ মিনিট এবং অতিরিক্ত ৩০ মিনিট খেলার পরেও দুই দলের কেউই গোলের দেখা না পাওয়ায় কুপ দে লা লিগের শেষ সংস্করণের ফাইনাল গড়ায় পেনাল্টি শুটআউটে। সেখানেও দুই দল সমানে সমান। পিএসজি এবং লিওঁ প্রথম ৫ পেনাল্টির সবগুলো জালে পাঠিয়েছে। তবে লিওঁ-র হয়ে ষষ্ঠ পেনাল্টি নিতে আসা বার্ট্রান্ড ট্রায়োরের শট ঠেকিয়ে দেন কেইলর নাভাস। এরপর পিএসজির পাবলো সারাবিয়া আর কোনও ভুল করেননি। নিখুঁতভাবে লিওঁ গোলরক্ষক অ্যান্থনি লোপেসকে বোকা বানিয়ে বল জালে পাঠান। আর এরই মাধ্যমে গত আট মৌসুমে সপ্তমবারের মতো এই শিরোপা উঁচিয়ে ধরে পিএসজি।

শুরু থেকেই লিওঁকে চেপে ধরে পিএসজি। তবে কোন ফল আদায় করতে পারেনি পিএসজি। বিরতিতে যাওয়ার আগে গোল করার সুযোগ পেলেও তা প্রতিরোধ করে লিওঁ গোলরক্ষক অঁতনি লোপেস। গোল শূন্য অবস্থায় বিরতিতে যায় দুই দল।

বিরতি থেকে ফিরে আবার সুযোগ আসে এগিয়ে যাওয়ার। তবে সে সুযোগ হাতছাড়া করে নেইমার। দ্বিতীয়ার্ধের অষ্টম মিনিটে নেইমারের দারুণ ফ্রি-কিক ঝাঁপিয়ে ঠেকিয়ে দেন লিওঁ গোলরক্ষক। ৯০ মিনিট শেষ হলেও কোন দল গোলের দেখা পায়নি। তাতে ৩০ মিনিট বাড়িয়ে দেওয়া হয়।

যোগ ৩০ মিনিটে দুই দলই অবশ্য গোল করার সুযোগ পায়। তবে সে সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি কোন দলই। ডি মারিয়ার নিচু শট লোপেজ রুখে দেওয়ার পর পাল্টা আক্রমণে বের্টান্ড ত্রাওয়ের শট ডিফেন্ডারে প্রতিহত হয়। তাতে শেষ পর্যন্ত কোন গোল করতে পারেনি কোন দল।

পরে টাইব্রেকারে প্রথম পাঁচ শট থেকে পাঁচটি গোলই করে দুই দল । পরবর্তীতে আরও একটি করে শটের সুযোগ দেওয়া হলে তাতে কপাল পুড়ে লিঁওর। বের্টান্ড ত্রাওরে শট মিস করলে পাবলো সারাবিয়া গোল করলে শিরোপা নিশ্চিত করে পিএসজি।