পুরো ল্যাবে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস, বন্ধ নমুনা পরীক্ষা

প্রকাশিত: ৯:০৯ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৫, ২০২০ | আপডেট: ৯:০৯:অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৫, ২০২০

ল্যাবে ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগে পিসিআর (পলিমারেজ চেইন রিঅ্যাকশন) পদ্ধতিতে করোনাভাইরাস শনাক্ত কার্যক্রম ছয় দিন ধরে বন্ধ রয়েছে। এতে ভোগান্তিতে পড়েছেন করোনার উপসর্গ থাকা নমুনা দেওয়া ব্যক্তি ও তাঁদের স্বজনেরা।

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ মোস্তফা কামাল আজাদ আজ শনিবার বিকেলে নমুনা পরীক্ষা বন্ধের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এদিকে পিসিআর ল্যাব বন্ধ থাকায় সিভিল সার্জন কার্যালয় নমুনা সংগ্রহও বন্ধ রেখেছেন। গত ২-১ দিন আগে যেসব রোগীরা নমুনা দিয়েছেন সেগুলো পরীক্ষার জন্য ঢাকা পাঠানো হলেও শনিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত ওই নমুনাগুলোর রিপোর্ট হাতে পায়নি সিভিল সার্জন কার্যালয়। পিসিআর ল্যাব বন্ধসহ এসব সমস্যায় সবচেয়ে বেশি ভোগান্তি পড়েছেন বিদেশযাত্রীরা।

কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ মোস্তফা কামাল আজাদ জানান, কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাব ও রুমের সব আসবাবপত্রে করোনাভাইরাস ছড়িয়েছে পড়েছে। যার কারণে ল্যাবে নমুনা পরীক্ষা বন্ধ রয়েছে।

তিনি আরও জানান, পিসিআর ল্যাবে করোনাভাইরাস মুক্ত করতে অ্যালকোহল ও জীবাণুনাশক ব্যবহার করা হচ্ছে। ল্যাবসহ রুমের সকল আসবাবপত্র ওয়াশ করে জীবাণুমুক্ত করতে ঢাকা থেকে লোক এসেছে। ল্যাব জীবাণুমুক্ত হলে আগামী রবি বা সোমবারের মধ্যে পুনরায় নমুনা পরীক্ষা শুরুর সম্ভাবনা রয়েছে।

কুমিল্লা জেলা সিভিল সার্জন ডা. মো. নিয়াতুজ্জামান বলেন, গত ৩০ ডিসেম্বর থেকে করোনা রোগীদের কোনও রিপোর্ট সরবরাহ করা যাচ্ছে না। মেডিকেল কলেজের ল্যাব বন্ধ থাকায় আমরা নমুনা পরীক্ষাও বন্ধ রেখেছি। তবে বিদেশগামীদের দেওয়া নমুনা পরীক্ষার জন্য ঢাকায় পাঠানো হলেও শনিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত তারাও কোনও রিপোর্ট দিতে পারেনি।