ফখরুলের স্বাধীনতার ডাক রাষ্ট্রদ্রোহিতার সামিল: কাদের

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ২:৩৪ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৭, ২০১৮ | আপডেট: ২:৩৪:অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৭, ২০১৮
সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ফাইল ছবি

টিবিটি রাজনীতি: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর দেশকে স্বাধীন করার ডাক দিয়েছেন। এটা কি রাষ্ট্রদ্রোহিতার সামিল না? এজন্য মির্জা ফখরুলকে রাষ্ট্রদ্রোহিতার বিচার করলে কি ভুল হবে?

শুক্রবার (১৭ আগস্ট) বিকেলে ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক সমাবেশে এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের। ২০০৫ সালের এই দিনে সারা দেশে সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ বিরোধী এ সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

সমাবেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, দেশকে আবার তারা স্বাধীন করবে, কোন স্বাধীনতা? পাকিস্তানে ইমরান খান সাহেব এসেছে তাই মহাখুশি। অচিরেই টের পাবেন কত ধানে কত চাল!

বিএনপির নেতাদের উদ্দেশে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, দেশে আবার ওয়ান-ইলেভেন সৃষ্টির সব ধরনের প্রচেষ্টা চালাচ্ছেন। খোঁজ-খবর আমরা রাখছি। কোথায় কোথায় বৈঠক হয়েছে, কারা কোথায় আসা-যাওয়া করছে। গত ৭ দিনে কারা কারা ব্যাংককে যাচ্ছেন, আসছেন আমরা সব জানি। ব্যাংককে এখন ঘাঁটি বানানো হয়েছে। তবে আপনাদের ষড়যন্ত্র সফল হবে না। দেশে আর ওয়ান-ইলেভেন আসবে না। জনগণ সঙ্গে নিয়ে সকল ষড়যন্ত্র নস্যাৎ করে দেবো। কারা কারা ষড়যন্ত্রের বাতাস দিচ্ছেন জানি, বাতাস দেওয়া বন্ধ করুন।

দলের নেতাকর্মীদের প্রস্তুত থাকার আহ্বান জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, প্রস্তুত থাকুন। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সকল ষড়যন্ত্র মোকাবিলা করে দাঁতভাঙা জবাব দেওয়া হবে।

দেশে গণতন্ত্র নেই বিএনপির নেতাদের এমন অভিযোগ প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, অফিসে বসে প্রধানমন্ত্রীকে অশ্রাব্য ভাষায় গালি দিচ্ছেন। গালিগালাজ করে ঘুরে বেড়াচ্ছেন, গ্রেফতার হচ্ছেন না। দেশে গণতন্ত্র না থাকলে কি প্রধানমন্ত্রীকে গালি দিয়ে ঘুরে বেড়াতে পারতেন। জেলে যাচ্ছেন না বলে এত বড় বড় কথা বলতে পারছেন। শেখ হাসিনা যেটা বলেছেন এটাকে কেউ অসত্য প্রমাণ করতে পারেনি। যা সত্য তাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অকপটে বলেন। আর এতে বিএনপির গায়ে কাটা লেগেছে বলে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে বিষোদগার করছেন। প্রধানমন্ত্রীকে কি তারা এভাবে বিষোদদগার করতে পারেন?

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাতের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, দপ্তর সম্পাদক আব্দুস সোবহান গোলাপ, সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমি, ঢাকা নগর নেতা শাহে আলম মুরাদ, সাদেক খান, শেখ বজলুর রহমান প্রমুখ।