বিনা চিকিৎসায় মারা গেলেন আওয়ামী লীগ নেতা

প্রকাশিত: ৮:৫৬ অপরাহ্ণ, জুলাই ২, ২০২০ | আপডেট: ৮:৫৬:অপরাহ্ণ, জুলাই ২, ২০২০

করোনাকালে দেশে চিকিৎসা না পেয়ে মৃত্যুর ঘটনা ঘটছে প্রায়শই। আজ বৃহস্পতিবার সকালে এমনই এক ঘটনা ঘটেছে চট্টগ্রাম নগরীর পার্ক ভিউ হাসপাতালে। হার্টের রোগীকে হাসপাতালে নিয়ে আসার পর ‘করোনা সন্দেহে’ ভর্তি নেয়নি কর্তৃপক্ষ। এভাবে দুই ঘণ্টা অতিবাহিত হওয়ার পর মারা গেলেন রোগী। বিনা চিকিৎসায় মারা যাওয়া এই রোগীর নাম মোহাম্মদ হোসেন। তিনি চট্টগ্রামের কর্ণফুলী থানার শিকলবাহা ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতি।

মোহাম্মদ হোসেন বেশ কয়েক বছর ধরেই হার্টের রোগী। গত ১৫ জুন প্রথম দফায় তাকে পার্ক ভিউ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে ভর্তি করায়নি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। পরবর্তীতে রোগীর স্বজনরা যোগাযোগ করেন চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরুল আজিম রনির সঙ্গে। তিনি হাসপাতালে যোগাযোগ করে অনুরোধের পর ভর্তি নেওয়া হয় মোহাম্মদ হোসেনকে। প্রায় দুই সপ্তাহ চিকিৎসা নেওয়ার পর গতকাল বুধবার রাতে তাকে বাসায় নিয়ে যান স্বজনরা।

আজ ভোরের দিকে আবার শ্বাসকষ্ট শুরু হলে তাকে নিয়ে আসা হয় পার্কভিউ হাসপাতালে। কিন্তু এবারও তাকে ভর্তি করা হচ্ছিল না। আশরাফ নামে এক ডাক্তার এসে রোগী দেখার পর বলেন, করোনা সাসপেক্টেড। এরপর আর কেউ খোঁজ নিতে আসেনি। এভাবে দুই ঘণ্টা অপেক্ষার পর হাসপাতালের গেটেই মারা যান মোহাম্মদ হোসেন।

এ ব্যাপারে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা নুরুল আজিম রনির সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, বেশ কিছুদিন আগে আমার সঙ্গে যোগাযোগ করেছিল রোগীর স্বজনরা। আমি তখন পার্কভিউ হাসপাতালে যোগাযোগ করে একটা সিট ম্যানেজ করে দিয়েছিলাম। শুনেছি আজ সকালে আবার একই কাজ করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

-২৪ লাইভ নিউজ।