ভারতে হিন্দুত্বের চাপে দ্বিতীয় শ্রেণির নাগরিক মুসলিমরা!

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১:২৪ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১১, ২০১৯ | আপডেট: ১১:২৪:পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১১, ২০১৯
ফাইল ছবি

গোটা ভারতে ‘উগ্র হিন্দুত্ববাদীদের হাতে মুসলিমরা কোণঠাসা’ এবং কাশ্মিরে নির্বিচারে মুসলমানদের হত্যা করার প্রতিবাদে গতকাল সিভিল সার্ভিস থেকে ইস্তফাও দিয়েছেন ফায়সল।

কলকাতাভিত্তিক আনন্দবাজার এক প্রতিবেদনে বলেছে, কুপওয়ারার সোগাম লোলাব এলাকার বাসিন্দা ফায়সল। সম্প্রতি তিনি আমেরিকার হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করে ফিরে পোস্টিংয়ের অপেক্ষায় ছিলেন এই তরুণ আইএএস। কিন্তু আমেরিকায় থাকাকালীন সোশ্যাল মিডিয়ায় একাধিক পোস্টের জন্য তার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেয় জম্মু-কাশ্মির সরকার।

ভারতে বিভিন্ন ধর্ষণের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে এর আগে টুইটারে তিনি লেখেন, ‘জনসংখ্যা, পিতৃতন্ত্র, অশিক্ষা, মদ, পর্নোগ্রাফি, প্রযুক্তি ও অরাজকতার ফলে দেশ রেপিস্তান হয়ে গেছে।’

এ ছাড়া জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা সংক্রান্ত সংবিধানের একটি ধারাকে ভারত ও ওই রাজ্যের (জম্মু ও কাশ্মির) মধ্যে ‘বিয়ের দলিল’-এর সঙ্গে তুলনা করেন তিনি।
Add Image
তবে দেশটির গণমাধ্যমে বলা হয়েছে, তার এসবের নেপথ্যে রয়েছে রাজনীতিতে যোগদান। খবরে বলা হয়েছে, ন্যাশনাল কনফারেন্সে যোগ দেবেন ফায়সল। এমনকি তাকে রাজনীতিতে স্বাগত জানিয়েছেন ন্যাশনাল কনফারেন্স প্রধান ওমর আবদুল্লাহ।

আর সর্বশেষ গতকাল তিনি এক পোস্টে লেখেন, ‘কাশ্মিরিদের হত্যা থামানোর সদিচ্ছা দেখাচ্ছে না কেন্দ্রীয় সরকার। রাজ্যের বিশেষ মর্যাদার ওপরেও আঘাত হানার চেষ্টা হচ্ছে।

হিন্দুত্ববাদীদের চাপে দেশের ২০ কোটি মুসলিম কার্যত দ্বিতীয় শ্রেণির নাগরিকে পরিণত হয়েছেন। এর প্রতিবাদে সিভিল সার্ভিস থেকে ইস্তফা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’