মাগুরায় মুক্তি ক্লিনিক সিলগালা

প্রকাশিত: ৮:৩৪ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৫, ২০২০ | আপডেট: ৮:৩৪:অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২৫, ২০২০

মাগুরায় চিকিৎসক, নার্স না থাকাসহ নানা অব্যবস্থাপনার কারণে মুক্তি ক্লিনিক এ্যান্ড নার্সিং হোম নামে একটি বেসরকারি স্বাস্থ্য কেন্দ্রকে বন্ধ করে দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। পাশাপাশি এটির অপারেশন থিয়েটার সিলগালা করা হয়েছে।

আজ বুধবার দুপুরে মাগুরার নেজারত ডেপুটি কালেক্টর (এনডিসি) নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আল এমরানের নেতৃত্বে এ আদালত পরিচালিত হয়।

ডেপুটি কালেক্টর (এনডিসি) আল এমরান জানান, মাগুরা ২৫০ শয্যা হাসপাতালের পূর্ব পাশে আবাসিক এলাকায় নানা অব্যস্থাপনা ও অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে মুক্তি ক্লিনিক এ্যান্ড নাসিং হোম নামে প্রাইভেট ক্লিনিকটি পরিচালিত হয়ে আসছিল। চিকিৎসক, নার্স না থাকাসহ নানা অব্যবস্থাপনার কারণে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনার মাধ্যমে ক্লিনিকটি বন্ধ ঘোষণাসহ এটির অপারেশন থিয়েটার সিলগালা করা হয়েছে। অভিযানের সময় মালিক পক্ষ না থাকায় তাদের কোন জেল জরিমান করা সম্ভব হয়নি। আগামী দুইদিনের মধ্যে ভর্তি রোগিদের অন্যত্র স্থানান্তর করে ক্লিনিকটি পুরোপুরি বন্ধ রাখতে ক্লিনিক কর্তৃপক্ষকে নোটিশ দেয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, সরকারি নিবন্ধন না থাকাসহ নানা অব্যবস্থাপনার অভিযোগে গত ১২ নভেম্বর মাগুরার ১টি বেসরকারি ক্লিনিক, ৩টি বেসরকারি হাসপাতাল ও ৩ টি ডায়াগনিস্টিক সেন্টার বন্ধ করে দেয় স্বাস্থ্য বিভাগ। বন্ধ ঘোষিত প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে মাগুরা শহরের ভায়না টিটিডিসি পাড়ার নিউ একতা ক্লিনিক, শহরের হাজী আব্দুল হামিদ সড়কের মা প্রাইভেট হাসপাতাল, একই এলাকার মাগুরা কিংস্ প্রাইভেট হাসপাতাল, একই এলাকার মাগুরা কুইন্স ডায়াগনষ্টিক সেন্টার, শহরের হাসপাতাল পাড়ার গ্রামীণ ডায়গনষ্টিক সেন্টার, একই এলাকার দি ল্যাবস্ক্যান ডায়গনষ্টিক সেন্টার ও পিটিআই সড়কের দেশ প্রাইভেট হাসপাতাল।