মানুষের অনুভূতি বুঝতে পারে ছাগল!

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১:৪৪ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৯, ২০১৮ | আপডেট: ১:৪৪:অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৯, ২০১৮

কুকুর, বেড়াল, ঘোড়া বা পোষ্য প্রাণীরা নাকি খুবই প্রভু ভক্ত হয়। মনিবের মুখের ভাবানুবেগ সহজেই বুঝতে পারে। এই কথা সবারই জানা। কিন্তু এই তালিকায় যুক্ত হতে যাচ্ছে গৃহপালিত গোবাদি পশু ছাগলও। যুক্তরাস্ট্রের বাটারকপস স্যানচ্যুরি ফর গট্স ইন ক্যান্ট এর এক গবেষণায় উঠে এসেছে , মানুষের হাস্যোজ্জ্বল মুখের ইমোশন বুঝতে পারে ছাগল।

এই গবেষণা চলাকালীন সময়ে একটি ছাগলের সামনে একই ব্যক্তির দুটি ছবি রাখা হয়। একটি ছবিতে ব্যক্তিটির হ্যাস্যোজ্জ্বল অভিব্যক্তি দেখা যায় অপর ছবিতে একই ব্যক্তির রাগান্বিত মুখের দেখা মেলে। এ সময় গবেষকরা দেখতে পান, ছাগলটি দুটি ছবির মধ্যে হাস্যোজ্জ্বল ছবিটির দিকে তাকিয়ে মুখ সোজা টানটান করে এক ধরনের প্রতিক্রিয়া দেয়।

গবেষকরা এখানেই থেমে ছিলেন না। এই ছবিতে আরো কি প্রতিক্রিয়া হতে পারে সে জন্য কাজ শুরু করেন। প্রথমে ছবিটি ছাগলটির ডানদিকে রেখে পরীক্ষা করেন। কিন্তু ছবিটি যখন ছাগলটির বামদিকে সরিয়ে দেওয়া হয় তখন আর তেমন কোনো পরিবর্তন লক্ষ্য করা যায়নি ছাগলটির।

এ বিষয়ে গবেষকরা বলছেন, ছাগলরা তাদের মস্তিস্কের একটি অংশ ব্যবহার করে প্রাপ্ত তথ্য অভিব্যক্তি আকারে প্রকাশের জন্য। অথবা এমনও হতে পারে যে ছাগলরা তাদের মস্তিস্কের বাম দিক ব্যবহার করে ইতিবাচক অভিব্যক্তির জন্য আর অন্য দিকটি ব্যবহার করে নেতিবাচক তথ্যের জন্য।

সংশ্লিষ্ট গবেষনাটির বিষয়ে ইউনিভার্সিটি অব রোহাম্পটন এর ডা: ম্যাক ইল্লগট বলেন, এই গবেষণাটি প্রাণীদের প্রতি মানুষের দৃষ্টিভঙ্গির জন্য গুরুত্বপূর্ণ। কারণ শুধু পোষ্য প্রাণীরাই মানুষের ইমোশন বুঝতে সক্ষম তা নয়। অন্যান্য জাতির প্রাণীরাও মানুষের ইমোশন বুঝতে পারে। সেক্ষেত্রে এই গবেষণাটি কাজে লাগবে।

সংশ্লিষ্টরা গবেষকরা বলছেন, এই গবেষণাটি প্রাণীদের নিয়ে ভবিষ্যতের গবেষণা জন্য অনুসরনীয় হয়ে থাকবে। কারণ ছাগল বা গৃহপালিত প্রাণীরাও যে মানুষের ইমোশন বুঝতে পারে তা এই গবেষণার মাধ্যমে বোঝা গেছে।