ম্যাসেঞ্জারে নগ্ন ছবি দিয়ে বিপাকে তরুণী

প্রকাশিত: ৬:৩৫ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৫, ২০১৮ | আপডেট: ৬:৩৫:অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৫, ২০১৮

ফেসবুক সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমগুলোর মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয়। বিভিন্ন ধরণের খবর, ভিডিও, ছবি ছাড়াও নতুন নতুন বন্ধুত্বের সম্পর্কও তৈরী হয় এখানে। কিন্তু বন্ধুত্বের নামে নোংরামি কিংবা অসামাজিক কার্যকলাপও নেহাত কম হচ্ছে না এখানে। তেমনই এক ঘটনা ঘটেছে ভারতে।

সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকে প্রথমে চেনাজানা হয়। এর পর বন্ধুত্ব গড়িয়েছিল নগ্ন ছবির আদান-প্রদান পর্যন্ত।

সেই সুযোগে পুরুষ বন্ধুটি তার বান্ধবীকে প্রথমে ব্ল্যাকমেল এবং পরে একাধিক বার ধর্ষণ করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। গত শনিবার গুজরাটের বডোদরা থেকে সোনু রাই (২৩) নামে ওই যুবককে গ্রেপ্তার করেছে উল্টোডাঙা থানার পুলিশ।

তদন্তকারী কর্মকর্তা জানান, ওই যুবক নদিয়ার বাসিন্দা হলেও গুজরাটে চাকরি করতেন। ফেব্রুয়ারি মাসে তার সঙ্গে ফেসবুকে ওই তরুণীর পরিচয় হয়। বন্ধুত্ব একটু পুরনো হতেই তরুণী নিজের কিছু নগ্ন ছবি সোনুকে শেয়ার করেন। তরুণী নিজেও বিবাহিত বলে পুলিশ জানিয়েছে।

অভিযোগে বলা হয়েছে, অক্টোবরে সোনু ওই তরুণীর সঙ্গে দেখা করতে কলকাতায় আসেন। পার্ক সার্কাসের একটি হোটেলে উঠে সোনু ওই তরুণীকে ডেকে পাঠান। তরুণীর নগ্ন ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিয়ে তাকে হোটেলেই ধর্ষণ করেন। এমনকি ওই যুবক তরুণীর কাছ থেকে ১০ হাজার টাকাও নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, সোনুকে ট্রানজিট রিমান্ডে কলকাতায় এনে মঙ্গলবার শিয়ালদহ আদালতে তোলা হলে ১৪ ডিসেম্বর পর্যন্ত পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেন বিচারক। সরকারি কৌঁসুলি অরূপ চক্রবর্তী জানিয়েছেন, তরুণীর গোপন জবানবন্দি নেওয়া হয়েছে। আটক ওই ব্যক্তির কাছ থেকে জব্দ করা হয়েছে দু’টি মোবাইল এবং একটি ল্যাপটপ।

ওই তরুণী তার অভিযোগে জানান যে, সোনু কলকাতায় এসে তাকে একাধিক বার ধর্ষণ করেছেন। শেষে তিনি সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসার কথা জানাতেই তার নগ্ন কিছু ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করে দেওয়ার হুমকি দেন সোনু।

এমনকি সোনু তাকে জানিয়ে দেন, সম্পর্ক থেকে বের হতে চাইলে ওই রকমই হবে। এমনই এক পরিস্থিতিতে তরুণী উল্টোডাঙা থানায় গিয়ে সোনুর বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।