যৌতুক না পেয়ে বিয়ের আসরেই পাত্রীকে লাথি, মারধর

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: 6:42 PM, December 2, 2019 | আপডেট: 6:43:PM, December 2, 2019

রণক্ষেত্র বিয়ে বাড়ি, পাত্রীকে বিয়ের আসরে মারধর! বরযাত্রীদের তাণ্ডবে কার্যত রণক্ষেত্রের চেহারা নিল বিয়ের আসর। বিয়ের আসরে ভাঙচুরের পাশাপাশি খাবার প্যান্ডেলেও ভাঙচুর চালায় বরযাত্রীরা। পাত্রীর বুকেও লাথি মারার অভিযোগ ওঠে খোদ পাত্রের বিরুদ্ধে।

এরপর গ্রামবাসীরা রুখে দাড়ালে পালিয়ে যায় বরযাত্রীরা। কিন্তু পাত্র সহ মোট আটজনকে আটকে রাখে কন্যা পক্ষ। ক্ষতিপূরণ না দিলে তাদের ছাড়া হবে না বলে জানিয়ে দেন ।

রবিবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিং থানার জয়রাম খালি গ্রামে। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ঐ এলাকায়।

দীর্ঘক্ষণ উত্তেজনার পর স্বাভাবিক হয় পরিস্থিতি। গভীর রাতে মুক্ত হয়ে বাড়ি ফেরে পাত্রপক্ষ। কিন্তু কেন এই ঘটনা ঘটল বিয়ে বাড়িতে?

জানা গিয়েছে, মাস ছয়েক আগে এর জয়রাম খালির বাসিন্দা উর্মিলার সঙ্গে রেজিস্ট্রি হয় সোনারপুর থানার বন হুগলির বাসিন্দা বীরু দাসের। ১লা ডিসেম্বর সামাজিক অনুষ্ঠান করে বিয়ে হওয়ার কথা ছিল।

পাত্রীপক্ষের কাছে নগদ ২৫ হাজার টাকা দাবি করেছিল পাত্রপক্ষ। কিন্তু কোনও কারণে সেই টাকা দিতে পারেনি তারা। সেই সঙ্গে বিয়েবাড়ির খাওয়া দাওয়ার আয়োজন নিয়েও কিছু সমস্যা দেখা দিয়েছিল। আর এতেই ক্ষোভে ফুটতে শুরু করে পাত্রপক্ষ। এই নিয়েই শুরু হয় অশান্তি।

বিয়ের আসরে এহেন ঘটনায় ভেঙে পড়েছেন পাত্রীর পরিবারের সদস্যরা। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, এই ঘটনায় এখনও লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়নি।