রশিদ খান খুব একটা ‘সমস্যা’ নয়: লিটন

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৫:৫২ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৮ | আপডেট: ৫:৫২:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৮

এশিয়া কাপে শুধুমাত্র বাংলাদেশ দলে কোনো লেগ স্পিনার নেই। বাকি দলগুলো, ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা এবং আফগানিস্তান দলে রয়েছেন লেগ স্পিনার। আরব আমিরাতের মাটিতে লেগ স্পিন দিয়েই বাজিমাত করার চিন্তা বাকি দলগুলোর। এ ক্ষেত্রে ভারত-পাকিস্তানের চেয়েও যেন এগিয়ে আফগানিস্তান। দলটিতে রয়েছেন দুইজন বিশ্বমানের লেগ স্পিনার রশিদ খান এবং মুজিব-উর রহমান। এ দু’জনের কাছেই মূলতঃ গত জুনে ভারতের দেরাদুনে গিয়ে হোয়াইটওয়াশ হতে হয়েছে বাংলাদেশকে।

এশিয়া কাপে ঘুরে-ফিরে সেই লেগ স্পিনের বিষয়টাই উঠে আসছে আলোচনায়। দু’দিন আগে দলে সুযোগ পাওয়া ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ মিঠুন বলেছিলেন, লেগ স্পিনে প্রস্তুতি নিতে না পারার ঘাটতি তাদের ভোগাতে পারে। কারণ বাংলাদেশ দলে যেমন একজন লেগ স্পিনার নেই, তেমনি ব্যাটিং প্রস্তুতিতেও লেগ স্পিনের অভাব প্রকট হয়ে দেখা দিয়েছে।

তবে দলের সম্ভাব্য ওপেনার লিটন কুমার দাস আজ (বুধবার) সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে জানালেন, রশিদ খান খুব একটা সমস্যা নয়। আগেরবার ছিল টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের খেলা। এবার ৫০ ওভারের খেলা। সুতরাং, দুই পরিবেশ এবং মেজাজ হবে ভিন্ন।

লেগ স্পিনে প্রস্তুতি সম্পর্কে জানতে চাইলে লিটন বলেন, ‘লেগ স্পিনার বলতে আপনি রশিদ খানের কথাই বলছেন হয়তো। সে অনেক ভালো বোলিং করে, বিশ্বে এখন সে ডমিনেট করছে। তবে আপনাকে এটাও বুঝতে হবে যে, এখানে ফরম্যাটটি ভিন্ন। টি-টোয়েন্টিতে রান করতে হবে এমন একটি প্রয়োজন ছিল; কিন্তু ওয়ানডে ক্রিকেটটি ৫০ ওভারের। সুতরাং লম্বা সময় পাওয়া যাবে তাকে খেলার জন্য।’

এশিয়া কাপে বাংলাদেশ দলের শক্তির জায়গাগুলো কি কি? লিটন বলেন, ‘এখানে ইভেন্টটি আসলে অনেক বড়। প্রত্যেকটি দলই ভালো এবং আমাদের গ্রুপে যে দুইটি দল আছে তারাও যথেষ্ট ভালো। তবে আমরা চেষ্টা করবো আমাদের শতভাগ দেয়ার। ম্যাচ বাই ম্যাচ জেতার জন্য অবশ্যই আমরা খেলবো। আমরা তিন সাইডেই এখন ভালো দল।’

কুইক বলে বাংলাদেশর ব্যাটসম্যানরা সব সময়ই ভুগে থাকেন। এশিয়া কাপের আগেও এ নিয়ে প্রস্তুতি নিয়েছে বাংলাদেশ দলের ব্যাটসম্যানরা। সে সম্পর্কে লিটন বলেন, ‘দেখুন, দক্ষিণ আফ্রিকা, ওয়েস্ট ইন্ডিজের মতো এতটা কুইক বোলার সেখানে (এশিয়া কাপ) নেই। দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে যেমন পেস বল খেলে এসেছি, তার চেয়ে এখানে তেমন কিছুই না। হয়তো পারফর্ম করতে পারিনি সেখানে। তবে খেলার অভিজ্ঞতা তো হয়েছে। সুতরাং সেখান থেকে যেভাবে কাজ করছি সেটি একটি চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়াবে। আশা করি ভালো করার চেষ্টা করবো।’