রাবি তিন শিক্ষকের অসদাচরণের অভিযোগ

মুজাহিদ হোসেন মুজাহিদ হোসেন

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৪:৩২ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৪, ২০১৯ | আপডেট: ৭:০৪:অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৪, ২০১৯

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ক্রপ সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি বিভাগের সভাপতিসহ দুই শিক্ষকের বিরুদ্ধে দুর্নীতি ও বিভাগের শিক্ষকদের প্রতি অসদাচরণের অভিযোগ উঠেছে।

গত বৃহস্পতিবার এ নিয়ে উপাচার্যের কাছে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বরাবর লিখিতভাবে অভিযোগ জানিয়েছেন বিভাগের অধ্যাপক আলী আসগর। উপাচার্য দপ্তরের জ্যেষ্ঠ কম্পিউটার অপারেটর ফজলুল বারী এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই উপ-উপাচার্য, রেজিস্ট্রার ও ছাত্র উপদেষ্টার কাছে তিনি এ অভিযোগপত্রের অনুলিপি জমা দিয়েছেন বলে নিশ্চিত করেছেন বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

অধ্যাপক আলী আসগরের অভিযোগ, ২০১৮ সালের ১ নভেম্বর বিভাগের স্নাতকের (সম্মান) পার্ট-১ পরীক্ষায় হল পরিদর্শনের সময় এক শিক্ষার্থী অসদুপায় অবলম্বন করায় তার উত্তরপত্র নিয়ে নিলে একই বিভাগের অধ্যাপক খায়রুল ইসলাম জোরপূর্বক ওই ছাত্রের খাতা ছিনিয়ে নিয়ে আমাকে কক্ষের বাইরে যেতে বলেন এবং দেখে নেয়ার হুমকি দেন।

আরেক অভিযোগে তিনি বিভাগের সভাপতি প্রফেসর মোঃ সাইফুল ইসলাম ও বিভাগের শিক্ষক প্রফেসর মোসলেহ্ উদ্দীন এর অনিয়ম-দুর্নীতি এবং বিভাগের শিক্ষক প্রফেসর মোহাম্মদ খায়রুল ইসলাম এর বিভাগের কয়েকজন শিক্ষকের প্রতি অসদাচরণ এর অভিযোগের সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিধি অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান।

অভিযুক্ত শিক্ষক ক্রপ সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. মো. সাইফুল ইসলাম ও বিভাগীয় শিক্ষক অধ্যাপক মো. মোসলেহ উদ্দীন। অসদাচরনের অভিযোগে অভিযুক্ত অারেকজন অধ্যাপক মো. খাইরুল ইসলাম।

তবে এ অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্ত শিক্ষকদের সাথে কথা বলতে গেলে তারা এটি ভিত্তিহীন বানোয়াট ও মিথ্যা বলে দাবি করেন।