রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে অসহায় বৃদ্ধার দায়িত্ব নিলেন ছাত্রলীগ নেতা

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:৩৫ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ২, ২০১৮ | আপডেট: ১২:৩৫:পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ২, ২০১৮

টিবিটি দেশজুড়েঃ পঞ্চগড়ে জরিনা বেগম (৭০) নামে এক অসহায় বৃদ্ধার চিকিৎসার দায়িত্ব নিয়েছেন পঞ্চগড় জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আকতারুজ্জামান আকতার।

জানা গেছে, ওই ছাত্রলীগ নেতা বৃদ্ধাকে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে দিয়েছেন। বৃদ্ধার চিকিৎসার যাবতীয় খরচ তিনি বহন করবেন বলেও জানিয়েছেন।

জানা গেছে, পঞ্চগড় জেলা শহরের কায়েতপাড়া এলাকার মৃত মহির উদ্দিনের স্ত্রী জরিনা বেগম। স্বামী মারা গেছে প্রায় ২৫ বছর আগে। দুই ছেলে ও এক মেয়ে তার। মেয়েটিকে বিয়ে দিয়েছেন। দুই ছেলের মধ্যে বড় ছেলে গুলজার ভ্যান চালক। ছোট ছেলে গোলাপ।

দুই ছেলে তাদের পরিবার পরিজন নিয়ে টানাপোড়েনে সংসার চালান। দুই ছেলের অভাবের সংসারে জায়গা হয়নি বৃদ্ধার। তাই মানুষের দ্বারে দ্বারে কাজ করে এবং সহযোগিতা নিয়ে কোনো মতে চলত তার দিন।

সম্প্রতি সে বার্ধক্যসহ বিভিন্ন রোগে ভুগছিলেন। এরমধ্যে হঠাৎ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আকতারুজ্জামানের চোখে পড়ে ওই বৃদ্ধাকে। রোগে শোকে ওই বৃদ্ধা খুব কষ্ট পাচ্ছিলেন। এই দৃশ্য দেখে ছাত্রলীগ নেতা ওই বৃদ্ধাকে ভ্যানে তুলে নিয়ে যান পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে।

হাসপাতালে ভর্তি করে দিয়ে চিকিৎসার সব খরচ বহন করাসহ প্রয়োজনীয় সহযোগিতার ঘোষণা দেন ছাত্রলীগের ওই নেতা। বর্তমানে ওই বৃদ্ধা পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের মহিলা মেডিসিন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

বৃদ্ধা জরিনা বেগম জানান, আমার ছেলেরা আমার জন্য যা করেনি উনি আমার জন্য তার চেয়ে বেশি করেছেন। আমি দোয়া করি আল্লাহ তার ভালো করুক।

পঞ্চগড় জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আকতারুজ্জামান আকতার জানান, ওই বৃদ্ধাকে দেখার পর আমার খুব খারাপ লেগেছে। আমি খোঁজ নিয়ে দেখলাম তার ছেলেরাও দরিদ্র এবং কাজ করে খায়। তাই আমি বৃদ্ধাকে হাসপাতালে ভর্তি করে দিয়ে যাবতীয় চিকিৎসার দায়িত্ব গ্রহণ করি। এটা আমাদের দায়িত্ব। এটা বড় করে বলার মতো কিছু না। আমাদের প্রত্যেকের অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানো উচিত।