রোহিঙ্গাদের সাথে কথা বলতে মিয়ানমারের স্বাধীন তদন্ত কমিশনের দল কক্সবাজারে

সফিউল আলম সফিউল আলম

কক্সবাজার প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৭:২৬ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৯, ২০১৯ | আপডেট: ৭:২৬:অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৯, ২০১৯
ছবি: টিবিটি

রাখাইনে রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতনের তথ্য সংগ্রহে মিয়ানমারের গঠিত স্বাধীন তদন্ত কমিশনের অগ্রবর্তী দল এখন কক্সবাজারে।

সোমবার ( ১৯ আগস্ট) বেলা ১১ টার দিকে দলটি কক্সবাজার বিমানবন্দরে পৌছায়। সেখান থেকে তারা ইনানী তারকা মানের হোটেল রয়েল টিউলিপে বিশ্রাম নেন। তারপর দুপুর একটার দিকে শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার আবুল কালামের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। বৈঠকে জেলা প্রশাসনের প্রতিনিধি, পুলিশ সুপার সহ সংশ্লিষ্টরা উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে জানানো হয়, মিয়ানমারের গঠিত স্বাধীন তদন্ত কমিশনের সদস্যরা আগামি মাসে রোহিঙ্গাদের স্বাক্ষ্য গ্রহণ করবেন। এ সময় কি করা হবে, কি কি কাজ করবে এসব বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।

প্রতিনিধি দলটি সন্ধ্যায় ইউএনএইচসিআরের প্রতিনিধির সঙ্গে বৈঠক করার কথা রয়েছে।

কমিশনের নেতৃত্ব দিচ্ছেন ফিলিপাইনের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী রোজারিও মানালো। কমিশনের অন্য সদস্যরা হলেন মিয়ানমারের সাংবিধানিক ট্রাইব্যুনালের সাবেক চেয়ারম্যান মিয়া থেইন, জাতিসংঘে জাপানের সাবেক স্থায়ী প্রতিনিধি কেনজো ওশিমা এবং ইউনিসেফের সাবেক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা ড. অন তুন থেট। এ ছাড়া মঙ্গলবার (২০ আগস্ট) সকালে বিভিন্ন রোহিঙ্গা ক্যাম্প তারা। সেখানে রোহিঙ্গাদের সাথে কথা বলবেন।

উল্লেখ্য যে, রোহিঙ্গা নির্যাতনের বিষয়টি তদন্তের জন্য ‘ইন্ডিপেন্ডেন্ট কমিশন অফ ইনকোয়ারি’ গঠন করেছে মিয়ানমার। ওই কমিশনের একটি প্রতিনিধিদল চার দিনের সফরে গত (শনিবার) বাংলাদেশে আসেন। দলটি এমন একটি সময়ে বাংলাদেশে এলো, যখন ২২ আগস্ট রোহিঙ্গাদের প্রথম দলটি তাদের মাতৃভূমি রাখাইনে প্রত্যাবাসন হতে যাচ্ছে।

এছাড়াও আগামী মাসে ‘এভিডেন্স কালেকশন এবং ভেরিফিকেশন’ নামের আরও একটি টিম আসার সম্ভাবনা রয়েছে। তারা রাখাইনে মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগগুলো তদন্ত করবেন এবং দোষী ব্যক্তিদের দায়বদ্ধতা নিশ্চিত করা।