লকডাউন ঘোষণা করতেই মদ কিনতে দোকানে হুড়োহুড়ি

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ৭:২৬ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২০, ২০২১ | আপডেট: ৭:২৭:অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২০, ২০২১

সোমবার থেকে দিল্লিতে এক সপ্তাহের লকডাউন ঘোষণা করেছেন সেখানকার মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। তার পরই ভারতের রাজধানীর বিভিন্ন মদের দোকানে মদ কেনার জন্য হুড়োহুড়ি পড়ে যায়।

এসময় ক্রেতাদের মধ্যে ছিলো না সামাজিক দূরত্ব বা স্বাস্থ্যবিধি মানার কোনো বালাই। লম্বা লাইন ভেঙে দোকানের মধ্যে ঢুকে পড়েন অনেক ক্রেতা। বেশ কয়েকটি দোকানে হাতাহাতিও হয় ক্রেতাদের মধ্যে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ মোতায়েন করা হয় বেশ কয়েকটি স্থানে। একেকজন ক্রেতাকে ১০ থেকে ১২টি করে মদের বোতল কিনে নিতে দেখা যায়। বিক্রি শুরুর কিছুক্ষণ পরই শেষ হয়ে যায় অনেক দোকানের স্টক।

মদের দোকানের ভিড় দেখে কেউ মনেই করতে পারবে না দিল্লিতে করোনা এতটা ভয়াল থাবা বসিয়েছে। মদ কেনার লাইন দেখে মনে হয়েছে, ‘ওষুধ নয় মদ চাই’। এই দৃশ্য দেখে বোঝা যাচ্ছে ৭ দিন নেশার জিনিস না পাওয়ার ভয়ে প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে মানুষ বেপরোয়া হয়ে মদের দোকানে লাইন দিয়েছে।

অরবিন্দ কেজরিওয়াল জানান, ‘সোমবার রাত ১০ থেকে পরের সোমবার সকাল ৫টা পর্যন্ত লকডাউন থাকবে দিল্লিতে। কিন্তু এই সময়ের মধ্যে চিকিৎসা এবং খাদ্য সংক্রান্ত জরুরি পরিষেবা চালু থাকবে।’

দিল্লির খান মার্কেট, গোলে মার্কেটের মতো এলাকায় দেখা যায়, একের পর এক মদের দোকানের সামনে কয়েকশ ক্রেতার ভিড়।

মদ কিনতে আসা এক নারী সাংবাদিকদের বলেন, ‘৩৫ বছর ধরে মদ খাচ্ছি। ওষুধের প্রয়োজন হয় না। ইঞ্জেকশনে কিছু লাভ হবে না। মদেই যা লাভ হওয়ার হবে।’ ক্যামেরার সামনে করা সেই মন্তব্য এখন ভারতে ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।