সাইকেল চালিয়ে রাজশাহী থেকে কাশ্মীর গেলেন রবিউল

প্রকাশিত: 6:23 PM, August 29, 2019 | আপডেট: 6:23:PM, August 29, 2019
ছবি: সংগৃহীত

এ এক আজব সফর। স্বপ্ন দেখার। স্বপ্নপূরণের। দু’চাকায় স্বপ্ন সফল করলেন বাংলাদেশের রবিউল রবিন। যার সঙ্গে মিলে মিশে গেল কলকাতা থেকে কাশ্মীর। কাশ্মীর থেকে ওয়াঘা। রাজশাহী থেকে কাশ্মীর। সেখান থেকে ওয়াঘা সীমান্ত। দু’চাকায় দামাল বাঙালি।

সাইকেলে পাঁচটি পাস জয়। সঙ্গে মাদকবিরোধী আন্দোলন। গাছ লাগানোর বার্তা। পরিবেশ বাঁচানোর আর্তি। শৈশবের দৌরাত্ম্যের সঙ্গী। কৈশোরের প্রথম ভাল লাগা। যৌবনের প্রেম। এভাবেই সাইকেলের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ককে দেখেন রবিউল। বাংলাদেশের রবিউল রবিন।

বাংলাদেশের ৬৪টি জেলার মধ্যে ৪০টিই রবিউল ঘুরেছেন সাইকেলে। তবে এবার আর নিজের দেশে শুধু নয়। এপার, ওপার মিলিয়ে দিলেন এই দু’চাকাতেই। সঙ্গে বিশেষ বার্তা।

১৭জুন শুরু হয়েছিল রবিউলের স্বপ্নের যাত্রা। যা পরিণতি পায় ১৫অগাস্ট। ভারতের স্বাধীনতা দিবসে ওয়াঘা সীমান্তে থাকতে পেরে কেমন লাগল এই বাংলাদেশী সাইক্লিস্টের?

চোখ ঢেকেছে কুয়াশায়। কখনও হিমাঙ্কের নিচে নেমেছে তাপমাত্রা। পেরোতে হয়েছে ঢালু, পাহাড়ি ভাঙা পথ। তবে রবিউলের পা থামেনি। থামবেও না। তাঁর পৃথিবী একটাই। যে পৃথিবী অনায়াসে সাইকেলে চক্কর কেটে আসা যায়। কাঁটাতারকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে। রাজশাহীর ছেলে তাই অবলীলায় প্রেমে পড়তে পারেন কলকাতার।

রক্তে অ্যাডভেঞ্চারের নেশা। চোখে হার না মানার স্বপ্ন। আর পরিবেশের প্রতি উজাড় করে দিতে পারা প্রেম। যে প্রেম মিলিয়ে দিতে পারে এপার-ওপারকে। যে নেশায় সব ব্যবধান মুছে এক হয়ে যান বাঘাযতীনের সম্রাট, আর রাজশাহীর রবিউল…

-নিউজ ১৮।