সুস্থ অবস্থায় ফাইজারের টিকা নেয়ার ১৬ দিন পর ডাক্তারের মৃত্যু

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ৫:৩৫ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৪, ২০২১ | আপডেট: ৫:৩৫:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৪, ২০২১

সুস্থ দেহে ফাইজারের টিকা নেওয়ার ১৬ দিন পর মস্তিষ্কের রক্তক্ষরণে মারা গেছেন যুক্তরাষ্ট্রের একজন চিকিৎসক। নিউ ইয়র্ক টাইমস জানিয়েছে, গ্রেগরি মাইকেল (৫৬) নামের ওই ধাত্রীবিদ্যাবিশারদ (গাইনোকলজিস্ট) ফ্লোরিডার মায়ামিতে কর্মরত ছিলেন।

ফাইজারের দাবি, তারা মনে করেন না টিকা নেওয়ার সঙ্গে ওই ডাক্তারের মৃত্যুর কোনও সম্পর্ক আছে। তবে ফ্লোরিডা ডিপার্টমেন্ট অব হেলথ এবং ফেডারেল সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্রোল এন্ড প্রিভেনশন (সিডিসি) এ ঘটনার তদন্ত করছে।

গত বছর ডিসেম্বরে সম্পূর্ণ সুস্থদেহে ফাইজার আবিষ্কৃত করোনা ভাইরাসের টিকা নিয়েছিলেন গ্রেগরি মাইকেল। এর ১৬ দিন পরে ৩রা জানুয়ারি তিনি মস্তিষ্কের রক্তক্ষরণে মারা যান।

গ্রেগরি মাইকেলের মৃত্যুর কথা ফেসবুকে একটি পোস্ট দিয়ে নিশ্চিত করেছেন তার স্ত্রী হিদি নেকেলম্যান। বলেছেন, তার স্বামীর কোনো রোগ প্রতিরোধ বিষয়ক বিশৃংখলা ছিল না শরীরে। এ ছাড়া এমন কোনো লক্ষণ বা অবস্থা তার শরীরে ছিল না, যার কারণে তিনি আইটিপিতে আক্রান্ত হতে পারেন।

হিদি এক সন্তানের মা। তিনি দাবি করেছেন, মন বলছে, আমার স্বামীর মৃত্যুর সঙ্গে শতভাগ সম্পর্ক আছে এই টিকার। এর অন্য কোনো ব্যাখ্যা হতে পারে না। করোনা ভাইরাসের টিকার শক্তিশালী প্রতিক্রিয়ার কারণে তার স্বামীর ব্রেনে রক্তক্ষরণ হয়েছে।

এ বিষয়ে নিউ ইয়র্ক টাইমসকে একটি বিবৃতি দিয়েছে ফাইজার। তাতে তারা বলেছে, আমরা ক্লিনিক্যাল পরীক্ষার সময় বা এই টিকা বাজারজাত করার পর এমন নিরাপত্তাজনিত কোনো সঙ্কেত পাইনি। তবে মাইকেলের পরিবারের শোকাহত সদস্যদের জন্য আমরা সহমর্মিতা প্রকাশ করছি।

ফাইজার বলেছে, এমন ঘটনা খুবই অস্বাভাবিক। এখন পর্যন্ত কয়েক লাখ মানুষকে এই টিকা দেয়া হয়েছে। টিকা নেয়ার পর আমরা ব্যক্তিবিশেষের ক্ষেত্রে কোনো বিরূপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয় কিনা তা ঘনিষ্ঠভাবে পর্যবেক্ষণ করছি।

ওদিকে মাইকেলের দেহ থেকে ময়না তদন্তের সময় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে গত বুধবার। তা এদিইন পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে সিডিসিতে। মিয়ামি-ড্যাডি কাউন্টি মেডিকেল এক্সামিনার ডিপার্টমেন্টের পরিচালক অপারেশন্স ড্যারেন কাপ্রারা এ কথা নিয়েছেন।