সৃজিতকে ‘প্যাঁচা’ বলে ডাকলেন মিথিলা!

টিবিটি টিবিটি

বিনোদন ডেস্ক

প্রকাশিত: ৮:৪৮ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২১, ২০২০ | আপডেট: ৮:৫০:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২১, ২০২০

লাল রঙের পাঞ্জাবি পরেছেন সৃজিত মুখোপাধ্যায়। সদ্য বিবাহিত স্ত্রী মিথিলা সেজেছেন সবুজ রঙা সালোয়ারে। কখনও বরের কাঁধে মাথা রেখে আবার কখনও বা পরস্পরের দিকে তাকিয়ে থাকা সৃজিত-মিথিলার ক্যানডিড মোমেন্ট আপনার মন ছুঁয়ে যাবে অনায়াসেই।

কিন্তু প্রিয় মানুষটিকে হঠাৎই প্যাঁচা বলে সম্বোধন করেছেন মিথিলা! থামেননি সেখানেই। সৃজিত প্যাঁচা হলে তিনি যে প্যাঁচার প্যাঁচানি সে কথাও লিখেছেন সৃজিত-ঘরণী।

মঙ্গলবার দু’জনের সেই ক্যানডিড মুহূর্তের ছবি শেয়ার করে ইনস্টাগ্রামে মিথিলা কোট করেছেন সুকুমার রায়ের অতি পরিচিত কবিতা ‘প্যাঁচা আর প্যাঁচানি’-র কিছু লাইন।

লিখেছেন, “প্যাঁচা কয় প্যাঁচানী, খাসা তোর চ্যাঁচানি; শুনে শুনে আনমন, নাচে মোর প্রাণমন! মাজা–গলা চাঁচা–সুর, আহলাদে ভরপুর! গলা–চেরা ধমকে, গাছ পালা চমকে; সুরে সুরে কত প্যাঁচ, গিটকিরি ক্যাঁচ্ ক্যাঁচ্! যত ভয় যত দুখ, দুরু দুরু ধুক্ ধুক্; তোর গানে পেঁচি রে, সব ভুলে গেছি রে; চাঁদমুখে মিঠে গান, শুনে ঝরে দু’নয়ান”। শুধু তাই নয়, হ্যাশ ট্যাগ দিয়ে লিখেছেন, #প্যাঁচা আর প্যাঁচানি।

 

View this post on Instagram

 

প্যাঁচা কয় প্যাঁচানী, খাসা তোর চ্যাঁচানি শুনে শুনে আন্‌মন নাচে মোর প্রাণমন ! মাজা–গলা চাঁচা–সুর আহলাদে ভরপুর ! গলা–চেরা ধমকে গাছ পালা চমকে, সুরে সুরে কত প্যাঁচ গিট্‌কিরি ক্যাঁচ্ ক্যাঁচ্ ! যত ভয় যত দুখ দুরু দুরু ধুক্ ধুক্, তোর গানে পেঁচি রে সব ভুলে গেছি রে, চাঁদমুখে মিঠে গান শুনে ঝরে দু’নয়ান ৷ #প্যাঁচাআরপ্যাঁচানী ?

A post shared by Rafiath Rashid Mithila (@rafiath_rashid_mithila) on

সৃজিতের প্রতি মিথিলার ওই প্রেম দেখে অভিনেত্রী রিদ্ধিমা ঘোষও লিখেছেন, ‘খুব মিষ্টি’।

গত ৬ ডিসেম্বর কাউকে আগে থেকে প্রায় কিছু না জানিয়ে হঠাৎই বিয়েটা সেরে ফেলেছিলেন সৃজিত। যদিও বিয়ের প্ল্যানিং সম্পর্কে আনন্দবাজার ডিজিটালের কাছে মুখ খুলেছিলেন তিনি। জানিয়েছিলেন ছোটখাটো, ঘরোয়া অনুষ্ঠান হবে। সেই মতোই সৃজিতের দক্ষিণ কলকাতার ফ্ল্যাটে পৌঁছে গিয়েছিলেন রুদ্রনীল, অনুপমরা। মিথিলার আগের পক্ষের মেয়ে আইরাকে নিয়ে নতুন জীবনের অঙ্গীকার নিয়েছিলেন বর-কনে।