স্কুলছাত্রীর বাল্য বিয়ে বন্ধ করলেন ইউএনও

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৪:৫৮ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৭, ২০১৮ | আপডেট: ৪:৫৮:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৭, ২০১৮

জয়পুরহাট সদর উপজেলায় এক স্কুলছাত্রীর বাল্য বিয়ে বন্ধ করে দিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মিল্টন চন্দ্র রায়। এ সময় মেয়ের বয়স ১৮ বছর না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে না দেয়ার অঙ্গীকার করে মুচলেকা দিয়েছে দুই পরিবার। শুক্রবার বিকেলে উপজেলার বড়ইতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বড়ইতলা এলাকার আবু সাঈদের মেয়ে স্থানীয় বড়ইতলা উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী রেমি আক্তারের (১৪) সঙ্গে জয়পুরহাট শহরের ধানমন্ডি এলাকার আব্দুল ছাত্তারের ছেলে রাজু আহম্মেদের বিয়ে ঠিক হয়। শুক্রবার বিয়ের দিন ধার্য ছিল। বিষয়টি এলাকাবাসীর নজরে পড়লে তারা তাৎক্ষণিক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে জানান। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মিল্টন চন্দ্র রায় দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে বাল্য বিয়ে বন্ধ করে দেন। মেয়ের বয়স ১৮ বছর না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দিবে না বলে বর ও কনে পক্ষের অভিভাবকরা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে মুচলেকা দেন।

উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মিল্টন চন্দ্র রায় জানান, স্থানীয় লোকজনের কাছ থেকে খবর পেয়ে স্কুলছাত্রীর বাল্য বিয়ে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।