হজযাত্রীদের সেবায় স্মার্ট কার্ড চালু করল সৌদি সরকার

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ৫:৫৭ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২৮, ২০২০ | আপডেট: ৫:৫৭:অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২৮, ২০২০

করোনাকালে হজের সময় পরীক্ষামূলক চালুর পর এবার হাজিদের সেবা দিতে আনুষ্ঠানিকভাবে স্মার্ট কার্ড উদ্বোধন করেছে সৌদির হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রণালয়। গতকাল রবিবার (২৭ ডিসেম্বর) তা উদ্বোধন করা হয়।

সৌদি গেজেটের এক প্রতিবেদনে জানা যায়, হজ পালনকারী প্রতি সদস্যকে একটি করে স্মার্ট কার্ড দেওয়া হবে। এর মাধ্যমে হজযাত্রীরা ব্যক্তিগত তথ্য যাচাই এবং চিকিৎসা ও নাগরিক সেবা গ্রহণ করতে পারবে।

স্মার্ট কার্ডের মাধ্যমে হজযাত্রীরা পবিত্র ভূমির বিভিন্ন স্থানে চলাফেরায় জরুরি দিকনির্দেশনা পাবে। তাছাড়া কার্ডের মাধ্যমে নিয়মবহির্ভূত পন্থায় আসা হজযাত্রীদের চিহ্নিত করা যাবে।

২০২০ সালের মক্কা সাংস্কৃতিক ফোরামে স্মার্ট কার্ড উদ্যোগ নিয়ে অংশগ্রহণ করেছিল হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রণালয়। মক্কা কালচারাল ফোরামের বিশেষ উদ্যোগে এই স্মার্ট কার্ডের চালু করা হয়েছে।

স্মার্ট কার্ডটি নিকটবর্তী স্থানের যোগাযোগ (এনএফসি)-এর মাধ্যমে পরিচালনা করা হবে। এর মাধ্যমে তারবিহীন যোগাযোগ প্রযুক্তির সাহায্যে স্বল্প-পরিসরের এনএফসি-এর অধীনে থাকা ডিভাইসগুলো একটি অপরটির সঙ্গে সংযোগ স্থাপন করে।

এছাড়াও হজের পবিত্র স্থাপনাগুলোতে স্থাপিত বিভিন্ন সাইটের মাধ্যমে স্মার্ট কার্ডটি পড়া যাবে। এতেকরে হজযাত্রীর তথ্য সম্পর্কে জানা যাবে।

স্মার্ট কার্ডটি সৌদি সরকার ঘোষিত ভিশন ২০৩০ এ গৃহীত উদ্যোগের একটি অংশ। এই উদ্যোগ বাস্তবায়নের মাধ্যমে হজযাত্রীদের সেবা প্রদানে প্রযুক্তি ব্যবহারের সাফল্য প্রমাণিত হয়।

২০২১ সালে অনুষ্ঠিত হজের সময় স্মার্ট কার্ডটি সক্রিয় করা হবে। অবশ্য তা ২০১৯ সালে করোনার মহামারিতে অনুষ্ঠিত সীমিত হজের সময় পরীক্ষামূলক চালু করা হয়েছিল। সব ধরনের সেবা প্রদান করতে কার্ডটি একটি কেন্দ্রের মাধ্যমে পরিচালিত হবে।