৮ম বারের মত স্বেচ্ছাসেবী সংগ্রহ করলো ইউনিস্যাব রাজশাহী বিভাগ

মুজাহিদ হোসেন মুজাহিদ হোসেন

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৭:৪১ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২০ | আপডেট: ৭:৪১:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২০

বাংলাদেশের অন্যতম বৃহৎ যুব সংঘ ও শিক্ষাথীদের মিলনস্থল “ইউনাইটেড ন্যাশন্স ইউথ এন্ড স্টুডেন্টন্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ ”(ইউনিস্যাব) রাজশাহী বিভাগের উদ্যেগে অনুষ্ঠিত হলো ৮ম স্বেচ্ছাসেবী সংগ্রহ-২০২০ এর চূড়ান্তপর্ব।

২৮ সেপ্টেম্বর, সোমবার সন্ধার পর নির্বাচিত স্বেচ্ছাসেবীদের মোবাইলে মেসেজ এবং ইমেলের মাধ্যমে ফলাফল জানানো হয়।

এইবার করোনা ভাইরাসের প্রাদুরভাবে শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় অনলাইন প্ল্যাটফর্ম জুমের মাধ্যমে ২৫ ও ২৬ সেপ্টেম্বর (শুক্র ও শনিবার) দুইদিনব্যাপী সকাল ৯ টা থেকে বিকাল ৬ টা পযর্ন্ত আগ্রহী প্রাথীদের সাক্ষাতকারের মাধ্যমে চূড়ান্তপর্ব অনুষ্ঠিত হয় ।

এই অনলাইনে সাক্ষাতকারে উপস্থিত ছিলেন ইউনিস্যাব রাজশাহী বিভাগের লাইফ টাইম অ্যালামনাই রাশেদুল ইসলাম সজীব এবং অ্যালামনাই সদস্যের মধ্যে ছিলেন-সাবেক আঞ্চলিক পরিচালক এজাজুল হক লিমন, আঞ্চলিক পরিচালক কামারুজ্জামান সায়েম, প্রশাসনিক সমন্বয়ক মাহমুদুল হাসান নয়ন, মডেল ইউনাইটেড ডেভেলপমেন্টের সমন্বয়ক মৌসুমি কবির, প্রশাসনিক সমন্বয়ক মুয়াম্মার মাহবুব, মিডিয়া এন্ড পাবলিক রিলেশনের সমন্বয়ক আশিক মাহমুদ আমীর, ব্র্যান্ডিং এন্ড ক্রিয়েটিভ প্রোমোশন এর সমন্বয়ক ফখরুল ইসলাম শাকিল সহ ইউনিস্যাব রাজশাহী বিভাগের সাবেক ও বর্তমান কর্ণধারবৃন্ধ । এসময় বর্তমানের আঞ্চলিক সম্পাদক ফয়সাল হাসান হাসিব বলেন, ইউনিস্যাব, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় সহ সারা বাংলাদেশে সামাজিক কার্যক্রমের মাধ্যমে জ্ঞানভিত্তিক সমৃদ্ধ সমাজ গঠনের পাশাপাশি তরুণদের মান উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে । এছাড়াও যারা করোনাকে সামনে রেখে সাহসের সাথে স্বেচ্ছাসেবী হিসেবে নিজেকে অনুপ্রাণিত করেছে তাদেরকে আন্তরিক অভিনন্দন জানিয়েছেন তিনি।

“ইউনিস্যাব রাজশাহী বিভাগের ৮ম স্বেচ্ছাসেবী সংগ্রহ ২০২০” এর প্রাথমিক পর্যায়ে আবেদন করে ৬২৭ জন আগ্রহী প্রার্থী । এদের মধ্যে থেকে ৪৮২ জন কে সাক্ষাতকারের জন্য মনোনীত করা হয় । পরিশেষে সাক্ষাতকারের মাধ্যমে মেধা, দক্ষতা এবং আগ্রহ ইত্যাদি যাচাই করে স্বেচ্ছাসেবী সংগ্রহ প্রক্রিয়া শেষ করা হয় । বস্তুত এই তরুণরা যাতে ভবিষ্যতে দেশের কল্যাণে জাতিকে নেতৃত্ব দিতে পারে তা বিবেচনা করা যোগ্য স্বেচ্ছাসেবক বাছাই করা হয়।

যুবসমাজের গঠনমূলক উন্নয়ন ও নেতৃত্বের বিকাশকে প্রতিপাদ্যকে রেখে “স্বেচ্ছাসেবী কার্যক্রমের মাধ্যমে নেতৃত্বের বিকাশ ” এই স্লোগান নিয়ে ২০১৪ সালে যাএা শুরু করে ইউনিস্যাব রাজশাহী বিভাগ । প্রতিবছর ইউনিস্যাব রাজশাহী বিভাগ ছায়া জাতিসংঘ সম্মেলন আয়োজন অনুষ্ঠিত হয় এর পাশাপাশি নানান ব্যক্তিক দক্ষতার উন্নয়নমূলক সেমিনার ও কর্মশালার আয়োজন করে থাকে। করোনার এই সময়েও ইউনিস্যাব রাজশাহী বিভাগ রয়েছে অসহায় , বন্যায় কবলিত ও অর্থহীন মানুষের পাশে। এছাড়াও বিভিন্ন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক দিবস উদযাপন, শীতকালীন সময়ে শীত বস্ত্র বিতরণ, ঈদ ফর স্ট্রীট চিলড্রেন, প্রজেক্ট হ্যাপি বার্থডে, বিভিন্ন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক ক্রান্তিকালে বহুবিধ সহায়তা কার্যক্রম, সমাজ সংস্কারসহ বিবিধ কার্যক্রমের মাধ্যমে সামাজিক দায়বদ্ধতা রক্ষায় অগ্রণী ভূমিকা রাখার মাধ্যমে বাংলাদেশের অন্যতম যুব সংগঠন হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।