The Bangladesh Today | Uniting people everyday

ঢাকা সোমবার, ২৩ মে ২০২২

করোনাকালে ক্ষতিগ্রস্ত দেশের পৌনে চার কোটি শিক্ষার্থী: ইউনিসেফ

করোনাকালে ক্ষতিগ্রস্ত দেশের পৌনে চার কোটি শিক্ষার্থী: ইউনিসেফ
সংগৃহীত

করোনাভাইরাস মহামারির কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় দেশের ৩ কোটি ৭০ লাখ শিক্ষার্থীর পড়াশোনা ব্যাহত হয়েছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘের শিশুবিষয়ক সংস্থা ইউনিসেফ।

সোমবার প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, মহামারির কারণে স্কুল বন্ধ থাকায় বিশ্বের ৬৩ কোটি ৫০ লাখেরও বেশি শিক্ষার্থীর শিক্ষাজীবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এর মধ্যে বাংলাদেশের ৩ কোটি ৭০ লাখ শিশুর পড়াশোনা ব্যাহত হয়েছে।

প্রতিবেদনে বাংলাদেশে ইউনিসেফের প্রতিনিধি মি. শেলডন ইয়েট বলেন, ‘কোভিড-১৯ মোকাবিলার ক্ষেত্রে স্কুল বন্ধ করতে হলে তা অবশ্যই শেষ অবলম্বন হিসেবে অস্থায়ী ভিত্তিতে করতে হবে। সংক্রমণের ঢেউ সামাল দিতে আমরা যেসব পদক্ষেপ নিচ্ছি তার মধ্যে প্রতিষ্ঠান বন্ধের ক্ষেত্রে সবার শেষে এবং খুলে দেওয়ার ক্ষেত্রে সর্বাগ্রে স্কুল থাকা উচিত।’

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, স্কুল বন্ধ থাকায় শুধু পড়াশোনারই ক্ষতি হচ্ছে না, পাশাপাশি শিশুদের মানসিক স্বাস্থ্যও বিপদের মুখে পড়ছে। 

ইউনিসেফের শিক্ষা বিষয়ক প্রধান রবার্ট জেনকিন্স বলেছেন, "মার্চ মাসে, আমরা বিশ্বব্যাপী শিক্ষায় কোভিড-১৯ মহামারির দুই বছর পূর্ণ হবে। এই সময়ে শিক্ষার্থীদের পড়াশোনায় যে ক্ষতি হয়েছে তা পূরণ করা খুব কঠিন।"

এ ক্ষেত্রে স্কুল পুনরায় চালু করাই যথেষ্ট নয়। যে ক্ষতি হয়েছে তা কাটিয়ে উঠতে শিক্ষার্থীদের নিবিড় সহায়তার প্রয়োজন বলেও জানান তিনি। এই পরিস্থিতিতে শিশু শিক্ষার্থীরা বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি। 

নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলিতে, স্কুল বন্ধের কারণে ১০ বছর বয়সী শিক্ষার্থীদের ৭০ শতাংশই একটি সাধারণ বই পড়তে বা বুঝতে অক্ষম। শতাংশের এই হার মহামারীকালের আগের চেয়ে ৫৩ শতাংশ বেশি। 


আরও পড়ুন