The Bangladesh Today | Uniting people everyday

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১

শিরোনাম
  • আদমদীঘিতে দেড় কেজি গাঁজাসহ গ্রেপ্তার ২ পবিত্র ঈদ-এ মিলাদুন্নবী উপলক্ষে সমাজসেবক আরজুর মহৎ উদ্যোগ মায়ের হাসি স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের শুভ উদ্বোধন চৌমুহনীতে নিহত ও ক্ষতিগ্রস্ত মন্দিরে এমপির আর্থিক সহায়তা প্রদান চিলমারীতে এক রাতেই তিস্তায় বিলীন ১৫ বাড়ি চিলমারীতে জেলের জালে ধরা পড়ল সাড়ে ১৫ কেজির বোয়াল মাছ বিএনপি সরকারের আমলে রেলের কোন উন্নয়ন হয়নি: রেলমন্ত্রী বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে সশরীরে ক্লাস শুরু ভারী বৃষ্টিপাত ও বন্যায় মধুখালীর সবজি বাজারে আগুন সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা ও সহিংসতার প্রতিবাদে বাগেরহাটে হিউম্যান রাইটস্ ডিফেন্ডার্স ফোরামের মানববন্ধন​​​​​​​
  • ভারতে রপ্তানি: দেশের বাজারে বেড়েছে ইলিশের দাম

    ভারতে রপ্তানি: দেশের বাজারে বেড়েছে ইলিশের দাম
    ছবি: সংগৃহীত

    আসন্ন দুর্গাপূজা উপলক্ষে প্রতিবেশী ভারতে ২ হাজার ৮০ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানির অনুমতি দিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। ৪০ মেট্রিক টন করে ৫২টি প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশি ইলিশ রপ্তানি করবে দেশটিতে। গতকাল সোমবার এই ঘোষণা আসার পরেই দেশের বাজারে জনপ্রিয় এই মাছটির দাম বেড়েছে।

    সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, ভরা পূর্ণিমায় গত কয়েকদিন বাংলাদেশের উপকূলে প্রচুর ইলিশ ধরা পড়েছে। দেশের পাইকারি ও খুচরা বাজারেও বিপুল পরিমাণ মাছের সরবরাহ লক্ষ করা গেছে। এর ফলে ইলিশের দাম কমার কথা থাকলেও উল্টো মণপ্রতি ১৫ হাজার টাকা পর্যন্ত বেড়েছে।

    খুলনার কেসিসি রূপসা পাইকারি মৎস্য আড়তের এস বেঙ্গল ফিসের প্রোপ্রাইটর প্রকাশ বাবু শুক্রবার (২৪ সেপ্টেম্বর) সকালে এসব কথা বলেন।

    তিনি আরও বলেন, বরিশাল, চরদুয়ারি, ভোলা, চাঁদপুর, পাথরঘাটা, মহিপুর, আলীপুরের মোকাম থেকে মাছ বিক্রি হয়ে যাচ্ছে। যার কারণে বাজারে ছোট ছোট মাছ ছাড়া বড় মাছ নেই। দামও বেশি। যা সাধারণ মানুষের ক্রয় ক্ষমতার বাইরে।

    মেসার্স মদিনা ফিস ট্রেডার্স পরিচালক মো. আবু মুছা গণমাধ্যমে বলেন, আসন্ন দুর্গাপূজা উপলক্ষে ভারতে ইলিশ রপ্তানির ঘোষণা আসার পরেই আড়তে ইলিশ আসা কমে গেছে। আগে যে ইলিশ এক হাজার টাকা কেজি দরে বিক্রি করা হয়েছে তা এখন ১৩শ’ টাকা। যা ৭০০ টাকা ছিল তা এখন ১ হাজার টাকা কেজি।

    তিনি আরও বলেন, আগের বছরের এই সময়ের তুলনায় এ বছর নদীতে ইলিশ ধরা পড়ছে কম। তারপরও কিছু মাছ বাজারে আসছিল। কিন্তু ভারতের বাঙালিদের এই মাছের স্বাদ দিতে ইলিশ রপ্তানির ঘোষণা আসার পর বাজারে ইলিশের আকাল। বাজারে যে ইলিশ আসছে তার দাম অস্বাভাবিক হারে বৃদ্ধি পাওয়ায় তা শুধু বিত্তবানরাই কিনতে পারছেন।
    খুলনায় সমুদ্র থেকে আহরিত মাছ আসে খুলনা সিটি কর্পোরেশন নিয়ন্ত্রিত কেসিসি রূপসা পাইকারি মৎস্য আড়ত ও ভৈরব নদের পাড়ে ৫নং ঘাট এলাকায়। দুইটি বাজারে ইলিশ মাছ কম আসায় কমেছে কর্মচাঞ্চল্য ও আড়তদারদের ব্যস্ততা।

    ভারতে রপ্তানির কারণে ইলিশের দাম বেড়ে যাওয়ায় জেলে-ব্যবসায়ীরা খুশি হলেও সাধারণ ক্রেতাদের কপালে ভাঁজ। কেননা খুলনার বাজারে টাকা হলেও মিলছে না বড় সাইজের ইলিশ। খুচরা বিক্রেতারা জাটকা ও মাঝারি সাইজের ইলিশ ছাড়া বড় মাছ ক্রেতাদের ব্যাগে দিতে পারছেন না।

    ভরা মৌসুমে ইলিশের চড়া দামের কারণে অনেকে ক্ষোভ প্রকাশ করেন।  

    সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, দুর্গাপূজা উপলক্ষে ভারতে ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন দিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। ৫২ রপ্তানিকারক ৪০ টন করে ইলিশ রপ্তানির সুযোগ পাবেন এবার। ২০১২ সাল থেকে ভারতে ইলিশ রপ্তানি বন্ধ থাকলেও ২০১৯ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পশ্চিমবঙ্গে ৫০০ টন ইলিশ রপ্তানি করেছিলেন। এরই ধারাবাহিকতায় দুর্গাপূজা উপলক্ষে ২০২০ সালে এক হাজার ৪৫০ টন রপ্তানির অনুমোদন দিয়েছিল সরকার। চলতি বছর অনুমোদন দেওয়া হয়েছে দুই হাজার ৮০ টন। কলকাতার বাজারে বৃহস্পতিবারই (২৩ সেপ্টেম্বর) উঠেছে বাংলাদেশের ইলিশ। বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) রাতেই বেনাপোল দিয়ে ইলিশের চালান ভারতে যায়। হাওড়াসহ পাইকারি বাজার হয়ে সেই ইলিশ এখন কলকাতার বাজারে।

    এদিকে, এ বছর ভারতের গঙ্গা কিংবা তার শাখা-প্রশাখার মোহনামুখ থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে ইলিশ। গঙ্গায় দূষণের মাত্রা বেড়ে যাওয়ার কারণে মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে তারা। ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশের গন্তব্য এখন বাংলাদেশের পদ্মায়। দুর্গাপূজাকে সামনে রেখে ভারতের বাজারে ইলিশের আকাল থাকায় বাংলাদেশের সুস্বাদু এ মাছের চাহিদা এখন আকাশ ছোঁয়া।


    আরও পড়ুন